জীবন যাত্রা

দাম্পত্য সুখে সিনেমা থেরাপি

দাম্পত্য সুখে সিনেমা থেরাপি

সব দম্পতিই কম-বেশি চলচ্চিত্র দেখেন। কিন্তু চলচ্চিত্র বা সিনেমা নিয়ে আলোচনা করেন খুব কম সংখ্যক দম্পতিই। কিন্তু ভালো কোনো চলচ্চিত্র দাম্পত্য জীবনে সুখ এনে দিতে পারে।

রোমান্টিক কোনো সিনেমা দেখলে তা জীবনসঙ্গীর সঙ্গে আরেকবার দেখুন এবং তা নিয়ে আলোচনা করুন। সিনেমার রোমান্টিকতা নিয়ে আলোচনা করলে তার প্রভাব নিজেদের ব্যক্তিজীবনেও পরবে বলে মনে করেন গবেষকরা।

নিউইয়র্কের ইউনিভার্সিটি অফ রচেস্টারের গবেষকরা বলছেন, স্বামী বা স্ত্রীর সঙ্গে রোমান্টিক সিনেমা দেখা অথবা সিনেমা নিয়ে আলোচনা করা নাকি দাম্পত্য জীবনে সুখ আনার এক চাবিকাঠি।

আলোচনা করলে দাম্পত্য জীবন দীর্ঘ হয় ও বিচ্ছেদের আশঙ্কা একেবারে থাকে না বললেই চলে।

গবেষকরা আরো জানিয়েছেন, এক মাসে অন্তত পাঁচটি রোমান্টিক সিনেমা নিয়ে নিজের সঙ্গীর সঙ্গে আলোচনা করলে বিচ্ছেদের ঝুঁকি অনেকটাই কমে যেতে পারে। এই গবেষণায় অংশ নেন প্রায় ১৭৪ জন নারী পুরুষ।

গবেষকরা তাদের ৪৭টি রোমান্টিক সিনেমার তালিকা দেন ও একমাস ধরে তাদের এই সিনেমাগুলো একসঙ্গে দেখতে বলা হয়। শুধু সিনেমা দেখা নয়, একে অপরের সঙ্গে আলোচনাও করতে বলেন গবেষকরা।

গবেষকেদের মতে, সিনেমা থেরাপির মাধ্যমে দম্পতিরা বুঝতে পারেন তাদের ঠিক কোনটা করা উচিত এবং কোনটা অনুচিত। এর ফলে সংসার জীবনে বিভিন্ন অশান্তি কমে যায় ও দাম্পত্য জীবন সুখের হয়ে ওঠে।

সম্প্রতি গবেষণাটি জার্নাল এফ কন্সাল্টিং সাইকোলজিতে প্রকাশিত হয়।

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button