বিচিত্রতা

মাথায় বন্দুক ধরল ডাকাত, তবুও পানশালায় পানে মত্ত তিনি (ভিডিও)

বারে বসে সিগারেটে সুখটান দিচ্ছিলেন এক ব্যক্তি। এমন সময় ঢুকে পড়ল একদল সশস্ত্র ডাকাত। কিন্তু পকেটের টাকা খরচ করে কিছুক্ষণের জন্য বারে এসেছেন। সময়টা কি নষ্ট হতে দেয়া যায়! রিল্যাক্স করবেন বলে যখন ঠিক করেছেন, তখন শুধু শুধু দুশ্চিন্তা করে কী হবে; ভাবটা যেন এমনই ছিল তার।

মাথায় বন্দুক ধরে, পাশের ব্যক্তিকে মেরে ফেলার হুমকি, কোনো কিছুতেই বিচলিত হলেন না তিনি। বারে বসে দিব্যি সিগারেটে একের পর এক সুখটান দিতে থাকলেন ওই ব্যক্তি। এমনকি এক ডাকাত ফোন কেড়ে নিতে আসায় একটু বিরক্ত হলেন। হালকা ধমকও দিয়ে দিলেন বন্দুকধারীকে। ঘাবড়ে গিয়ে তাকে ছেড়ে এগিয়ে গেল ডাকাত।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সেন্ট লুইসের ওই বারে আশপাশের মানুষ তখন ভয়ে কাঁপছেন। কেউ টেবিলের নিচে লুকিয়েছেন। কিন্তু তার কোনো প্রভাবই পড়ল না ওই ব্যক্তির ওপর। এক সময় পাশের ব্যক্তির মাথায় বন্দুক রেখে তাকে প্রাণে মারারও হুমকি দিল ডাকাত দলের সদস্য।

কিন্তু তাতেও কোনো বদল এল না তার আচার-আচরণে। অগত্যা তাকে আর বেশি ঘাঁটাল না ডাকাতরা। নিজেরা নিজেদের মতো ডাকাতি সেরে বেরিয়ে গেল। পুরো ঘটনার এ দৃশ্য ধরা পড়েছে বারের সিসিটিভি ক্যামেরায়। ওই ব্যক্তির এমন ভাবলেশহীন আচরণে বেজায় মজা পেয়েছেন নেটিজেনরা। তার সেই ভিডিও এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়।

নেটিজেনদের অনেকেই মনে করছেন, ওই ব্যক্তি এতটাই মত্ত ছিলেন যে কী হচ্ছে বুঝতেই পারেননি। তার জন্যই এমন আচরণ করেছেন। আবার কারও কারও মতে কর্মজীবনেই এত অশান্তি যে এটুকু ঝামেলায় একেবারেই মাথা ঘামাতে নারাজ ওই ব্যক্তি। জিনিউজ।

আরও পড়ুন ::

Back to top button