পঞ্জাবে করোনায় মৃত পুরোহিতের থেকে ভাইরাস ছড়িয়েছে ২৩ জনের মধ্যে!


পঞ্জাবে করোনায় মৃত পুরোহিতের থেকে ভাইরাস ছড়িয়েছে ২৩ জনের মধ্যে!

গত ১৮ মার্চ পঞ্জাবে যে ৭০ বছরের মানুষটি মারা গেছেন নভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে, তিনি সম্ভবত আরও অনেকের মধ্যেই এই ছোঁয়াচে ভাইরাসটি ছড়িয়ে দিয়ে গিয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে।পঞ্জাবের একটি গুরুদ্বারের বছর সত্তরের এই পুরোহিত তাঁর দুই বন্ধুর সঙ্গে দু সপ্তাহের জন্য জার্মানি এবং ইটালিতে বেড়াতে গিয়েছিলেন।

মার্চের ৬ তারিখে তাঁরা দিল্লিতে ফিরে আসেন। সেখান থেকে গাড়ি চালিয়ে পঞ্জাবে নিজেদের গ্রামে পৌঁছন।
পঞ্জাবে এখনও মোট ৩৩ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত। যাঁদের ২৩ জনের মধ্যে এই পুরোহিতের থেকেই এই ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। তিনি এবং তাঁর দুই বন্ধু দেশে ফেরার পর কোনও বিধি নিষেধ মানেননি। সামাজিক মেলামেশা করে গেছেন একের পর এক। এমনকি ওই পুরোহিতের নাতি নাতনিও নানা সামাজিক আড্ডা ও জমায়েতে পৌঁছেছেন নির্দ্বিধায়।


গত ৮ থেকে ১০ই মার্চ তিনি আনন্দপুর সাহেবনগরে একটি অনুষ্ঠানেও অংশ নিয়েছিলেন, সেখান থেকে আবার ফিরে যান সাহেব ভগত সিং নগর জেলায়,তাঁর বাড়িতে। তাঁর করোনা পজিটিভ আসার আগে প্রায় ১০০ জনের সঙ্গে দেখা করেছেন নানা জায়গায়। পুরো রাজ্যে মোট ১৫ টি গ্রামে ঘুরেছেন। তাঁর পরিবারের ১৪ জনের দেহে নভেল করোনা ভাইরাস পজিটিভ পাওয়া গেছে। আপাতত সরকারি আধিকারিকরা পঞ্জাবের গ্রামে গ্রামে বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে মানুষজনের সঙ্গে দেখা করে কথা বলে বোঝার চেষ্টা করছেন পরিস্থিতি। মোহালি, অমৃতসর, নওয়ানসর, জলন্ধর, হোশিয়ারপুরে চিন্তার কারণ রয়েছে যথেষ্টই। ভারতে এই মুহূর্তে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ৭০০, ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে ইতিমধ্যেই।

সুত্র: আজকাল.in

আপনার মন্তব্য

Recommended For You