রাজনীতিরাজ্য

‘দুয়ারে দুয়ারে গেলে কাটমানির হিসাব চাইবেন’, মুখ্যমন্ত্রীকে খোঁচা সায়ন্তনের

'দুয়ারে দুয়ারে গেলে কাটমানির হিসাব চাইবেন', মুখ্যমন্ত্রীকে খোঁচা সায়ন্তনের
রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু

আকাশ থেকে নেমে দুয়ারে যেতে যেতে নির্বাচন ঘোষণা হয়ে যাবে। বাঁকুড়ায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘোষিত ‘দুয়ারে দুয়ারে সরকার’ প্রকল্পকে এই ভাষাতেই কটাক্ষ করলেন রাজ্য বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু।

যে বাঁকুড়ায় কিছুদিন আগেই সাংগঠনিক বৈঠক করে গিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ, সেখানেই সোমবার ‘দুয়ারে দুয়ারে সরকার’ কর্মসূচির সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

খাতড়ায় প্রশাসনিক জনসভা থেকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, নয়া এই প্রকল্পের আওতায় আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে শুরু হয়ে যাবে কাজ। চলবে আগামী ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত। এই প্রকল্পের আওতায় প্রতিদিন বেলা ১১টা থেকে বেলা ৩টে পর্যন্ত রাজ্যের ব্লকে ব্লকে প্রশাসনের তরফে ক্যাম্প করা হবে।

‘দুয়ারে দুয়ারে সরকার’ প্রকল্পে মানুষ প্রশাসনের কাছে যে অভাব, অসুবিধার কথা তুলে ধরবে, তা সঙ্গে সঙ্গে সমাধান করতে হবে। মানুষ যা চাইবে, তা সঙ্গে সঙ্গে মানুষকে দিতে হবে। যদি সেইসময় প্রশাসনের হাতে সেই সুযোগ না থাকে, তবে তালিকা তৈরি করতে হবে। জনপরিষেবা সংক্রান্ত প্রকল্পগুলির সুযোগ-সুবিধা আরও বেশি করে মানুষকে পাইয়ে দিতে হবে।

এ প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘ভোটের মুখে জনগণের আরও কাছে পৌঁছতে চাইছে রাজ্য সরকার। এখনও যাঁরা বিভিন্ন প্রকল্পের সুবিধা পাওয়ার যোগ্য অথচ পাননি, তাঁরা যেমন আবেদন জানাতে পারবেন ওই সব ক্যাম্প থেকে, তেমনই নতুন কোনও দাবিদাওয়া থাকলেও জানাতে পারবেন তাঁরা।’

আরও পড়ুন: রাজনীতিতে আসার জল্পনা উড়িয়ে দিলেন না সৌরভ

এ প্রসঙ্গে সায়ন্তন বলেন, ‘ভালো বলেছেন। মরণকালে হরিনাম। এত দিন সরকার কি ছিলো আকাশে? আকাশ থেকে নেমে দুয়ারে যেতে যেতে নির্বাচন ঘোষণা হয়ে যাবে। আমরা বলছি, দুয়ারে দুয়ারে গেলে, কাটমানির হিসাব চাইবেন। শিল্পের কী হল? আইনশৃঙ্খলার এই হাল কেন?’

এদিকে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই প্রকল্পকে ‘নকল’ বলে অভিযোগ করলেন বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়ের। তাঁর অভিযোগ, ‘এই কর্মসূচি বিজেপির নেওয়া। ২০১৯ সালে জনসংযোগের হাতিয়ার হিেসবে বিজেপির মহিলা মোর্চার কর্মীরা পৌঁছে গিয়েছিলেন মানুষের দুয়ারে দুয়ারে।

আমরা ‘দুয়ারে দুয়ারে পদ্মের আগমনী’ নামে একটি ক্যাম্পেনও করেছিলাম। এখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখেও দুয়ারে দুয়ারে শোনা যাচ্ছে। এই সরকার কপি-পেস্ট ছাড়া আর কিছু পারে না।

প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার নাম যেভাবে বদলে বাংলা আবাস যোজনা, স্বচ্ছ ভারতের নাম বদলে নির্মল বাংলা করা হয়েছে, এই ‘দুয়ারে দুয়ারে সরকার’ও ‘দুয়ারে দুয়ারে পদ্মের আগমনী’র অবিকল নকল।

সুত্র: কলকাতা ২৪*৭

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button