বিনোদন

শ্রীদেবীকে খুন! প্রাক্তন ডিজিপির লেখাকে মন গড়া বলে ওড়ালেন বনি

শ্রীদেবীকে খুন! প্রাক্তন ডিজিপির লেখাকে মন গড়া বলে ওড়ালেন বনি

শ্রীদেবীর মৃত্যু নিয়ে সম্প্রতি কেরল পুলিশের প্রাক্তন ডিজি ঋষিরাজ সিংহ একটি মন্তব্য করেছেন। তাঁর ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞ এক বন্ধুকে উদ্ধৃত করে ঋষিরাজ স্থানীয় এক সংবাদপত্রে প্রশ্ন তুলেছেন, শ্রীদেবীর মৃত্যু কি আদৌ স্বাভাবিক? তার প্রেক্ষিতেই এ বার মুখ খুললেন শ্রীদেবীর স্বামী বনি কপূর। মৃত স্ত্রীকে নিয়ে এ ভাবে কাটাছেঁড়া করায় বেজায় চটেছেন বনি কপূর।

সংবাদপত্রের বিশেষ ওই কলামে ঋষিরাজ লিখেছেন,শ্রীদেবীর মৃত্যু প্রসঙ্গে তিনি এক বার কৌতূহলবশত তাঁর এক ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞ বন্ধু উমাদাথনকে জিজ্ঞেস করেছিলেন। উমাদাথন তাঁকে বলেছিলেন, শ্রীদেবীর মৃত্যু কোনও সাধারণ ঘটনা নয়। জলে ডুবে হয়তো মারা যাননি প্রবীণ ওই অভিনেত্রী। ঋষিরাজ তাঁকে প্রশ্ন করেছিলেন, এ রকম ভাবনার পিছনে কারণ কী? উমাদাথন জানিয়েছিলেন,কোনও মানুষের পক্ষেই বাথটাবের এক ফুট জলে ডুবে মৃত্যু সম্ভব নয়। যদি না কেউ তাঁর দুই পা জোরে চেপে ধরেন। অথবা মাথা জলে ডুবিয়ে দেন।

এই লেখা প্রকাশ পাওয়ার পরেই বনি কপূরের কাছে তাঁর প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হয়। বনি একটি সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, এ সব মন গড়া কথা। তাঁর কথায়, ”এ সব মনগড়া গল্প প্রসঙ্গে আমি কোনও মন্তব্য করতে চাই না। কিছু বোকা মানুষের কল্পনা ছাড়া একে আর কী বা বলতে পারি!”

গত বছরের ২৪ ফেব্রুয়ারি দুবাইয়ের একটি হোটেলে স্নানাগারের বাথটাবে অচৈতন্য অবস্থায় উদ্ধার হয় শ্রীদেবীর দেহ। প্রাথমিক তদন্তের পর সে দেশের পুলিশ জানিয়েছিল অচৈতন্য অবস্থায় জলে ডুবে গিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু,অচৈতন্য হলেন কী ভাবে?সে প্রশ্নের জবাব মেলেনি আজও। শ্রীদেবীর স্বামী বনি কপূরের ভূমিকা নিয়েও নানা প্রশ্ন উঠেছিল সেই সময়। ঘটনার দিন তিনি কী করছিলেন? কোথায় ছিলেন? এ সব নিয়েও নানা জল্পনা ছিল। তবে সময়ের সঙ্গে সঙ্গে শ্রীদেবীর মৃত্যু নিয়ে সে সব প্রশ্ন ইদানীং যেন ফিকে হয়ে আসছিল। সেগুলোই ফের তুলে ধরেছে ঋষিরাজের ওই কলাম।

বিভিন্ন মহল আবারও সরব। কেউ কেউ যেমন উমাদাথনের মত নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। কেউ কেউ আবার গলা মিলিয়েছেন উমাদাথনের মতের সঙ্গে। তবে কিছু দিন আগেই মারা গিয়েছেন উমাদাথন। অনেকে তাই প্রশ্ন তুলছেন, ঋষিরাজ সিংহকে আদৌ কি এমন কথা বলেছিলেন উমাদাথন?

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button