রাজনীতিরাজ্য

কেশিয়াড়িতে বাড়ির উঠানে মিলল BJP কর্মীর মৃত দেহ, স্বাভাবিক মৃত্যু- বলে দাবি কমিশনের


কেশিয়াড়িতে বাড়ির উঠানে মিলল BJP কর্মীর মৃত দেহ, স্বাভাবিক মৃত্যু- বলে দাবি কমিশনের - West Bengal News 24


শনিবার থেকেই শুরু হয়ে গেল নবান্ন দখলের লড়াই (West Bengal Election 2021)। আর রাজ্যের ৩০ আসনে প্রথম দফার (Phase 1) ভোটগ্রহণ শুরু হতেই দিকে-দিকে অশান্তি শুরু হয়েছে। বান্দোয়ানে বুথ ফেরত ভোটের গাড়িতে যেমন আগুন ধরিয়ে দেওয়া হল, তেমনি পটাশপুর, এগরায় রাতভর চলল বোমাবাজি, আবার শালবনিতে বিক্ষোভের মুখে পড়তে হল সিপিএম প্রার্থী সুশান্ত ঘোষকে, ভাঙা হল সংবাদমাধ্যমের গাড়ি। কিন্তু এখনও পর্যন্ত সবচেয়ে মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়াড়িতে। নিজের বাড়ির দরজাতে মিলল এক বিজেপি কর্মীর রক্তাক্ত দেহ। ওই বিজেপি কর্মীকে পিটিয়ে খুন করা হয়েছে বলে অভিযোগ। যদিও মঙ্গল সোরেন নামে ওই বিজেপি কর্মীর মৃত্যু স্বাভাবিক কারণেই ঘটেছে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

শনিবার সকালে ক্ষেতে কাজে যাওয়ার সময় উঠোনে ছেলের রক্তাক্ত দেহ দেখতে পান তাঁর মা। শরীর ছিল অসাড়। মাথায় ও ঘাড়ে গুরুতর আঘাতের চিহ্ন মিলেছে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন বিজেপি কর্মী সোনালি মুর্মু। নিহত যুবকের মা জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতে বাড়ি ফিরে দাওয়ায় বসে খাবার খায় ছেলে। তার পর হাঁটতে বেরোয়। সকালে তিনি দেখেন উঠোনে পড়ে ছেলের দেহ। মায়ের দাবি, ছেলে কোনও রাজনৈতিক দল করত না। তাঁকে অন্য কোথাও পিটিয়ে খুন করে ফেলে যাওয়া হয়েছে। নিহতের অন্য আত্মীয় অবশ্য জানিয়েছেন তিনি বিজেপি সমর্থক ছিলেন।

আরও পড়ুন: তৃণমূলে ভোট দিলেও তা পড়ছে বিজেপিতে! কাঁথিতে অভিযোগ তুলে বিক্ষোভ স্থানীয়দের

স্থানীয় বিজেপি প্রার্থী সোনালি মুর্মু বলেন, ‘গত রাতে এখানে বিজেপি কর্মীদের ওপর হামলা চালায় তৃণমূলি দুষ্কৃতীরা। তাতে ১ ব্যক্তির মাথা ফাটে। তাঁকে নিয়ে আমি হাসপাতালে গিয়েছিলাম। এই খুন কখন হয়েছে তা আমি বুঝতে পারিনি। সকালে উঠে বিষয়টি জানতে পারি।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন জেলা পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনীর প্রতিনিধিরা। তাঁরা দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানোর তোড়জোড় শুরু করেছেন। মুখে কুলুপ এঁটেছেন ঘটনাস্থলে থাকা আধিকারিকরা। ঘটনাটি নিয়ে জেলা প্রশাসনের কাছে দ্রুত রিপোর্ট তলব করেছে নির্বাচন কমিশন। প্রাথমিক রিপোর্টে পুলিশ জানিয়েছে, রাজনৈতিক কারণে এই খুন নয়। এর সঙ্গে ভোটের কোনও সম্পর্ক নেই।



Related Articles

Back to top button