জাতীয়

রাহুল গান্ধীকে শকুনের সঙ্গে তুলনা করলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন

কংগ্রেস (Congress) নেতা রাহুল গান্ধীকে (Rahul Gandhi) বেনজির আক্রমণ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী (Union Health Minister) হর্ষ বর্ধনের (Harsh Vardhan) । দেশের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্রকে আক্রমণ করায় কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধীকে শকুনের সঙ্গে তুলনা করলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন।

নিউইয়র্ক টাইমসের (New york Times) একটি প্রতিবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ভারতের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বলতে গিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে (Central Govt) আক্রমণ করেন রাহুল গান্ধী। টুইটে কংগ্রেস নেতা লেখেন, ”সংখ্যা মিথ্যা বলে না, কেন্দ্র বলে।” রাহুলের এই টুইটের পাল্টা কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন। তাঁর কথায়, ”লাশের রাজনীতি কংগ্রেসের। দিল্লির থেকেও নিউইয়র্কের তথ্যে বেশি ভরসা করেন রাহুল গান্ধীজি। লাশ নিয়ে কীভাবে রাজনীতি করতে হয় তা এই মাটির শকুনদের দেখে শেখা উচিত।”

উল্লেখ্য, নিউ ইয়র্ক টাইমসের একটি প্রতিবেদনে ভারতের করোনা পরিস্থিতির কথা তুলে ধরা হয়। ওই প্রতিবেদনে দাবি করে বলা হয়েছে, ”ভারতে (India) সরকারি তথ্য অনুযায়ী ২৪ মে পর্যন্ত করোনাভাইরাসে (Corona Virus) আক্রান্ত হয়ে ৩ লক্ষ ৭ হাজার ২৩১ জনের মৃত্যুর কথা বলা হয়েছে। কিন্তু বাস্তবের সঙ্গে ওই হিসেবের মিল নেই।

করোনায় আক্রান্ত হয়ে ভারতে এখনই অন্ততপক্ষে ৬ লক্ষ মানুষের মৃত্যু হয়েছে।” মার্কিন ওই সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনকে ঢাল করে কেন্দ্রীয় সরকারকে আক্রমণ শানিয়েছেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। যারই পরিপ্রেক্ষিতে পাল্টা রাহুল গান্ধীকে বিঁধেছেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন।

ভারতে করোনার সেকেন্ড ওয়েভ (Second Wave) চলছে। রাজ্যে-রাজ্যে সংক্রমণ লাগামছাড়া। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যু। করোনার সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়া রুখতে একাধিক রাজ্যে লকডাউন-সহ বিভিন্ন বিধি নিষেধ জারি করা হয়েছে। তবুও সংক্রমণে লাগাম পরামো যাচ্ছে না। একাধিক রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি মারাত্মক আকার নিয়েছে। এরই সঙ্গে করোনার দোসর হয়েছে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস (Black Fungus) ।

রাজ্যে-রাজ্যে আতঙ্ক বাড়াচ্ছে মিউকরমাইকোসিস বা ব্ল্যাক ফাঙ্গাস। গোটা দেশে ইতিমধ্যেই ব্ল্যাক ফাঙ্গাসে সংক্রমিতের সংখ্যা বেড়ে ১২ হাজারের কাছাকাছি পৌঁছেছে। ব্ল্যাক ফাঙ্গাসকে ইতিমধ্যেই মহামারী হিসেবে ঘোষণা করেছে বিভিন্ন রাজ্যের সরকার।

কেন্দ্রের তরফেও ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের সংক্রমণ নিয়ে রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলিকে নিয়মিত রিপোর্ট পাঠাতে বলা হয়েছে। ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের ওষুধের বরাদ্দও বাড়িয়েছে কেন্দ্র। রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির জন্য প্রায় ৩০ হাজার অ্যাম্ফোটিরিসিন-বি (Amphotericin B)বরাদ্দ করেছে কেন্দ্রীয় সরকার।

সূত্র : কলকাতা ২৪*৭

আরও পড়ুন ::

Back to top button