জাতীয়

নৃশংস! নারকীয় নির্যাতন ১০ বছরের নাবালিকার উপর, গ্রেফতার ৯

নৃশংস বললেও বোধহয় কম বলা হয়। ৮নাবালক এবং ১৮ বছরের এক যুবক মিলে গণধর্ষণ করল ১০ বছরের নাবালিকাকে। ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে হরিয়ানার (Haryana) রেওয়ারি (Rewari) জেলায়। জানা গিয়েছে, পঞ্চম শ্রেণঈর ছাত্রীর উপর যে নাবালকরা নির্যাতন চালিয়েছে তাদের সকলের বয়স ৮ বছর থেকে ১৫ বছরের মধ্যে। এই ঘটনায় অভিুক্তদের গ্রেফতার করে পুলিশ।

নাবালিকার পরিবার সূত্রে জানা যায় যে, ঘটনাটি গত ২৪ মে ঘটে। সেদিন যখন মেয়েটি বাড়ির বাইরে খেলা করছিল তখনই এই কান্ড ঘটায় অভিযুক্তরা। ঘটনাটির ভিডিও রেকর্ডও করে অভিযুক্তরা। এবং সেই ভিডিও দেখিয়েই শুরু হয় ভয় দেখানো। বলা হয়, বাইরে একথা বললেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও ছড়িয়ে দেওয়া হবে।

এবিষয়ে রেওয়ারির ডিএসপি (DSP) হংসরাজ জানান, অভিযুক্তের মা-বাবা ৮ জুন অভিযোগ জানান। এরপর ঘটনার বিবরণ দিতে গিয়ে তিনি বলেন যে, প্রথমে মেয়েটিকে তার বাড়ির পাশেই একটি সরকারি স্কুলে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়। তারপর তারা নির্মমভাবে গণধর্ষণ করে এবং গোটা ঘটনাটি ভিডিও রেকর্ড করে রাখে। এরপর থেকেই শুরু হয় ব্ল্যাকমেল। নাবালিকাকে তারা হুমকি দিয়ে বলে যে, মুখ খুললেই এই ভিডিও ইন্টারনেটে আপলোড করে দেবে তারা।

নাবালিকার বাড়ির তরফ থেকে অভিযোগ পাওয়ার পর ওই ৯ জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ (Police)। বিচার বিভাগীয় হেফাজতে রাখা হয়েছে ১৮ বছরের যুবককে। যে ৫ জনের বয়স ১৮ বছরের নিচে তাদের জুভেনাইল হোমে পাঠানো হয়েছে। এবং যে তিন নাবালক ঘটনার ভিডিও করেছিল তাদেরকেও অবজার্ভেশন হোমে পাঠানো হয়।

এক পুলিশ আধিকারিক জানান যে, এই ঘটনার কথা স্বীকার করে নিয়েছে তারা। জেরায় তারা জানায় যে, পর্ন ভিডিও দেখার পরই তারা এই নৃশংস কান্ড ঘটায়।

এমন নারকীয় নির্যাতনে ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পর থেকেই গ্রামের নিরাপত্তা নিয়ে উঠছে প্রশন। অনেকেই তাদের পরিবার নিয়ে আতঙ্কে রয়েছেন। আর তাদের যেন একটাই প্রশ্ন, নিরাপত্তা কোথায়?

সুত্র : কলকাতা ২৪*৭

আরও পড়ুন ::

Back to top button