নদীয়া

অদ্ভুত ঘটনা! এবার নদীয়ায় দেখা মিলল ‘ম্যাগনেট ম্যানের’

মলয় দে

পরশুরামের গল্প অবলম্বনে সত্যজিৎ রায়ের পরিচালিত পরশ পাথর সিনেমার কথা মনে আছে নিশ্চয়ই!

হ্যাঁ সেখানে অবশ্য ওই পাথর, অভিনেতা তুলসী চক্রবর্তী লোহাতে স্পর্শ করলেই সোনা হয়ে যাচ্ছিলো! প্রায় সত্তর বছর পর, করোনা প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে ভ্যাকসিন প্রাপ্তির পর আস্ততো শরীরটাই চুম্বক হয়ে যাচ্ছে! যার ফলে, লোহার নিকেল করা পয়সা, স্টেনলেস স্টিলের হাতা খুন্তি, গ্যাস জ্বালানো লাইটার, চাবি চাবি রিং এমনকি মোবাইল পর্যন্ত আটকে যাচ্ছে গায়ের সাথে।

ভাবছেন এমন আবার হয় নাকি! প্রথমে আমরা বিশ্বাস করতে পেরেছিলাম না, মহারাষ্ট্রের নাসিকে এ ধরনের একটি খবর প্রত্যক্ষ দর্শী হয়েছিলেন এক সাংবাদিক, এরপর গতকাল শিলিগুড়িতে ৫৮ বছর বয়সী নেপাল চক্রবর্তীরও একই পরিস্থিতি!

অবশেষে আজ আমাদের নদীয়ার পলাশীপাড়ার অভয়নগর গ্রামে প্রবীর কুমার মন্ডল হতবাক! কিছুটা চিন্তিতও বটে, তবে শারীরিক কোনো অসুস্থতা তার নেই। বরং তিনি নিজেই জানান, এ ব্যাপারে দুশ্চিন্তা মুক্ত করতে আগামীকালই পলাশীপাড়া হাসপাতালে যাবেন তিনি, কারণ সেখানেই গত ৮ এপ্রিল কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ নিয়েছিলেন তিনি।

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে, এলাকায় বেশ চাঞ্চল্য ছড়ায়, দূরদূরান্তের আত্মীয়-স্বজন পরিজন এবং এলাকাবাসী অনেকেই ঘটনা চাক্ষুষ করতে পৌঁছে যাচ্ছেন তার বাড়িতে।

আরও পড়ুন ::

Back to top button