কলকাতা

রেড রোডে ভয়াবহ বাস দুর্ঘটনা, বাসের তলায় পড়ে মৃত্যু পুলিশকর্মীর, আহত ১৩

Red Road Bus Accident in Kolkata : রেড রোডে ভয়াবহ বাস দুর্ঘটনা, বাসের তলায় পড়ে মৃত্যু পুলিশকর্মীর, আহত ১৩ - West Bengal News 24

শহরের রাস্তায় মর্মান্তিক দুর্ঘটনা। বেপরোয়া মিনিবাসের ধাক্কায় এক বাইক আরোহীর মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন বাসের একাধিক যাত্রী। অন্তত ১৩ জনকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে এসএসকেএমে। তাঁদের মধ্যে আটজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। মেটিয়াবুরুজ থেকে হাওড়ার দিকে যাচ্ছিল বাসটি। ফোর্ট উইলিয়ামের সামনে ঘটে দুর্ঘটনা। সাউথ গেটের পাঁচিল ভেঙে ঢুকে যায় বাস। বাসের সামনে ছিলেন এক বাইক আরোহী। ঘটনাস্থলেই তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি প্রত্যক্ষদর্শীদের। ঘটনাস্থলে পরিদর্শনে যান ডিসি সাউথ ও কলকাতার পুলিশ কমিশনার সৌমেন মিত্র।

আজ থেকেই শহরের রাস্তায় বাস চলাচলের অনুমতি দেওয়া হয়েছে। আর এ দিন সকালেই ঘটে গেল দুর্ঘটনা। মৃত বাইক আরোহীর নাম বিবেকানন্দ দাস। তিনি কলকাতা পুলিশের রিজার্ভ ফোর্সের কর্মী ছিলেন বলে জানা গিয়েছে। বাইকের গায়ে কেপি লেখা দেখেই সন্দেহ হয় পুলিশের। পরে পুলিশ ওই মৃত ব্যক্তির পরিচয় নিশ্চিত করেছে। দুর্ঘটনার পর কার্যত আতঙ্ক কাটিয়ে উঠতে পারছেন না যাত্রীরা। বাসে প্রায় ৪০ জন যাত্রী ছিলেন। তাঁদের দাবি, বাস যে গতিতে ছুটছিল, তাতে দুর্ঘটনা আরও বড় আকার নিতে পারত। গাড়ির গতি এতটাই বেশি ছিল যে পাঁচিলের সঙ্গে ধাক্কায় দুমড়ে-মুচড়ে গিয়েছে বাসের সামনের চাকা। ছিটকে গিয়েছে পিছনের চাকাও। বাইক আরোহীকে বাঁঁচাতে গিয়েই এমন দুর্ঘটনা কি না, তা এখনও স্পষ্ট নয়।

বাসের এক যাত্রীর দাবি, সম্ভবত মত্ত অবস্থায় ছিলেন গাড়ির চালক। তিনি জানান, দুর্ঘটনার পরও বেশ কিছুক্ষণ বাসেই বসেছিলেন ওই চালক। তাঁকে দেখে মত্ত বলে মনে হয়েছে প্রত্যক্ষদর্শীদের। এখনও পর্যন্ত চালকের খোঁজ পায়নি পুলিশ। মদ্যপ অবস্থায় তিনি গাড়ি চালাচ্ছিলেন কি না, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে অ্যাম্বুলেন্সে যাত্রীদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করেছে। দুর্ঘটনার জেরে ঘটনাস্থলে যানজটের পরিস্থিতি তৈরি হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ফোর্ট উইলিয়াম থেকে জওয়ানরাও ছুটে আসেন। ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে ফরেনসিক টিম। কী কারণে দুর্ঘটনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

প্রায় দেড় মাস বন্ধ ছিল বাস। তারপর আজ রাস্তায় গণ পরিবহন চালু হয়। দীর্ঘ দিন বন্ধ থাকার ফলে বাসের কোনও যান্ত্রিক ত্রুটি ছিল কি না, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। রাজ্য পরিবহন দফতর সূত্রে খবর, সমস্ত বেসরকারি বাস মালিক সংগঠনের কাছে আবেদন করা হবে যাতে রাস্তায় বাস নামানোর আগে বাস ঠিক আছে কি না, বাসের চাকা এবং অন্যান্য যন্ত্রাংশ ঠিক আছে কি না, সেগুলো দেখে তবেই বাস রাস্তায় নামানো হয়।

সূত্র : টিভি৯বাংলা

আরও পড়ুন ::

Back to top button