টলিউড

‘মা হওয়ার সঙ্গেই অপরাধবোধের জন্ম হয়’, কেন এমন বললেন শুভশ্রী?

টলিউডের জন্মপ্রিয় নায়িকা শুভশ্রী গাঙ্গুলি। ভালোবেসে বিয়ে করেছেন নির্মাতা রাজ চক্রবর্তীকে। ২০১৮ সালে তারা বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। এরপর গত বছরের সেপ্টেম্বরে শুভশ্রীর কোল আলো করে আসে পুত্র সন্তান ইউভান।

স্বামী আর সন্তান নিয়ে শুভশ্রীর সংসার জীবন সুখেই কাটছে। তিনি নিজেও এই জীবন নিয়ে তৃপ্ত। সেটি তার সোশ্যাল মিডিয়ার অ্যাকটিভিটি দেখলেই বোঝা যায়।

ছেলের জন্মের পর এখনও নতুন কোনো ছবির কাজে হাত দেননি শুভশ্রী, তবে রিয়ালিটি শো ‘ডান্স বাংলা ডান্স’এর হাত ধরে শ্যুটিং ফ্লোরে ফিরেছেন নায়িকা। এই শোয়ে জিত ও গোবিন্দার সঙ্গে বিচারকের আসনে দেখা মিলছে নতুন মায়ের।

ছেলেকে সামলে শুটিংয়ে যাওয়াটা শুভশ্রীর জন্য সহজ ছিল না। কীভাবে মানিয়ে নিচ্ছেন অভিনেত্রী? সেই নিয়ে প্রশ্ন রাখা হয়েছিল শুভশ্রীর কাছে।

এক সাক্ষাৎকারে এই টলিউড সুন্দরী জানিয়েছেন, ‘মা হওয়ার সঙ্গেই অপরাধবোধের জন্ম হয়। নিজের সঙ্গে একটু ‘মি টাইম’ কাটিয়ে ফেললেই অপরাধবোধে ভুগি আমি। শ্যুটিংয়ে যখন যাই, ইউভানকে নিয়েই চিন্তা হয়’।

তবে যৌথ পরিবারে থাকার জন্যই ৯ মাসের ছেলেকে বাড়িতে রেখে শুটিং ফ্লোরে ফিরতে পেরেছেন বলে জানান শুভশ্রী। শাশুড়ি, ননদদের নিয়ে বিশাল পরিবার শুভশ্রীর। নায়িকার কথায়, ‘সবাই ওকে খুব আদরে রাখে। দিনকয়েক আগে শুটিংয়ের ফাঁকে ভিডিয়ো কল করেছিলাম, আমাকে দেখেই কাঁদতে শুরু করল। খুব মন খারাপ হয়েছিল’।

সোশ্যাল মিডিয়া ইউভানের জনপ্রিয়তা নিয়েও মুখ খুলেছেন শুভশ্রী। অভিনেত্রীর কথায়, ইউভান যাতে সব রকম পরিস্থিতিতে মানিয়ে নিতে পারে সেই ভাবনা থেকেই তাকে আড়ালে না রাখবার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তারা। অভিনেত্রীর কথায়, ‘আর পাঁচজন মা-বাবার মতোই আমি আর রাজ সন্তানের সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলো সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করি। ওকে জনপ্রিয় করে তুলতে হবে বলে কিন্তু করি না’।

আরও পড়ুন ::

Back to top button