জাতীয়

ভারতের মহান গণতন্ত্রকে বদনাম করতে পেগাসাস প্রজেক্টের ভুয়া রিপোর্ট: অমিত শাহ

পেগাসাস প্রজেক্ট নিয়ে পুরো বিশ্ব উত্তাল। ওই প্রজেক্টে ভারতের নাম আসার পর সরকারকে তীব্র আক্রমণ শানাচ্ছে বিরোধীরা। তাই বাধ্য হয়ে এ নিয়ে বিবৃতি দিতে হলো স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে। নিজের বহুল জনপ্রিয় উক্তির পুনরাবৃত্তি করে শাহ দাবি করেন, ভারতের মহান গণতন্ত্রকে বদনাম করতে এবং উন্নয়নের গতি স্তব্ধ করতে এই ধরনের ভুয়া রিপোর্ট সামনে আসছে। এর নেপথ্যে বিরোধীদের এবং বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার ষড়যন্ত্র দেখছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। খবর সংবাদ প্রতিদিনের।

এক বিবৃতিতে শাহ বলেন, জানি আমার এই কথাটা নিয়ে অনেকে হাসাহাসি করেন। কিন্তু আজ খুব সিরিয়াস হয়েই এই কথাটা আমি বলতে চাই। আপনি ক্রোনোলজিটা বুঝুন। ঠিক কখন এই ধরনের লিকগুলো হচ্ছে। ঠিক কীভাবে আমাদের বাধা দেয়া হচ্ছে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর দাবি, এই রিপোর্ট প্রকাশ করেছে বিদেশের বাধাদানকারীরা। আর এটি তৈরি হয়েছে দেশের ভেতরের বাধাদানকারীদের জন্য।

দেশের বাইরে বেশ কিছু সংস্থা আছে যারা ভারতের উন্নতি সহ্য করতে পারে না। আর দেশে কিছু রাজনৈতিক খেলোয়াড় আছে যারা ভারতের উন্নতিতে বাধা দিতে চায়। ভারতবাসী এই ক্রোনোলজি ভালোই বোঝে। অমিত শাহ’র দাবি, এই রিপোর্ট একটাই উদ্দেশে তৈরি করা হয়েছে, যেকোনোভাবে আন্তর্জাতিক মহলে ভারতকে বদনাম করা।

উল্লেখ্য, রোববার রাত থেকে পেগাসাস রিপোর্ট নিয়ে রীতিমতো আলোড়িত জাতীয় রাজনীতি। পেগাসাস নামের এই ম্যালওয়ার ব্যবহার করে কেন্দ্র বিরোধীদের ফোনে আড়ি পাতছে বলে জানা গেছে। টার্গেটে রয়েছেন সাবেক কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী, তৃণমূল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক অভিষেক ব্যানার্জি, ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোরসহ দেশের বহু বিরোধী নেতা। এমনকি কয়েকজন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর ফোনেও আড়ি পাতা হচ্ছে বলে অভিযোগ।

আরও পড়ুন ::

Back to top button