রাজ্য

রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত ৭৫২, মৃত্যুহীন কলকাতা

West Bengal Corona Update : রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় আক্রান্ত ৭৫২, মৃত্যুহীন কলকাতা - West Bengal News 24

স্বস্তি মিলছে না কিছুতেই। রাজ্যে প্রাণঘাতী করোনার দৈনিক সংক্রমণ ফের সাড়ে সাতশোর গণ্ডি ছাড়িয়ে গেল। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৭৫২ জন। এ নিয়ে পর পর দু’দিন দৈনিক সংক্রমণ সাড়ে সাতশোর গণ্ডি টপকাল। তাছাড়া টানা চারদিন দৈনিক সংক্রমণ সাতশো ছাড়িয়ে গেল। দৈনিক সংক্রমণের পাশাপাশি দৈনিক মৃত্যুও নতুন করে উদ্বেগ বাড়াচ্ছে। মারণ ভাইরাসের ছোবলে গত ২৪ ঘন্টায় প্রাণ হারিয়েছেন ১৪ জন।

শনিবার সন্ধ্যায় রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের পক্ষ থেকে প্রকাশিত করোনা বুলেটিনে জানানো হয়েছে, ‘গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আরও ৪২ হাজার ৮২৪টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। নয়া নমুনা পরীক্ষায় আরও ৭৫২ জনের শরীরে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।

এ নিয়ে রাজ্যে মারণ ভাইরাসে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১৫ লক্ষ ৫৬ হাজার ১৫৭ জনে। নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার অবশ্য আগের দিনের তুলনায় কিছুটা কমেছে। গত ২৪ ঘন্টায় শনাক্তের হার অর্থা‍ত্‍ পজিটিভিটি রেট দাঁড়িয়েছে ১ দশমিক ৭৬ শতাংশে।’

আরও পড়ুন : কবির জন্মবার্ষিকীকে মৃত্যুবার্ষিকী বলে রাজ্যপালের টুইট, ভুল শুধরে ধনকড়কে ‘খোঁচা’ মন্ত্রীর

দৈনিক সংক্রমণের পাশাপাশি করোনার ছোবলে দৈনিক মৃত্যুও কিছুটা হলে উদ্বেগ বাড়াচ্ছে। স্বাস্থ্য দফতরের তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘন্টায় মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন ১৪ জন। শুক্রবারও প্রাণ হারিয়েছিলেন ১৪ জন। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে করোনার বলি হলেন ১৮ হাজার ৫৬৭ জন।

আগের দিন কলকাতায় পাঁচ জনের মৃত্যু হলেও গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুশূন্য থেকেছে কল্লোলিনী তিলোত্তমা। সর্বাধিক মৃত্যু ঘটেছে উত্তর ২৪ পরগনা ও নদিয়ায়। দুই জেলাতেই চার জন করে করোনার মৃত্যুমিছিলে সামিল হয়েছেন। তাছাড়া জলপাইগুড়িতে তিন জন, হুগলিতে দু’জন এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনায় একজন মারা গিয়েছেন।’

স্বাস্থ্য দফতরের প্রকাশিত বুলেটিন অনুযায়ী, ‘প্রাণঘাতী ভাইরাসকে হারিয়ে গত ২৪ ঘন্টায় সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৭৫৪ জন। এ নিয়ে সুস্থ হলেন ১৫ লক্ষ ২৯ হাজার ৩৮৭ জন। সুস্থতার হার ৯৮ দশমিক ২৮ শতাংশ। একদিনে অ্যাকটিভ কেসের সংখ্যা কমেছে ১৬টি। যার ফলে সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা কমে দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ২০৩ জনে।’

সূত্র: এই মুহুর্তে

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button