অপরাধ

লিভ ইন সম্পর্কে চিড়, পার্টনারকে কুপিয়ে খুনের চেষ্টা

পূজা বিবাহ বিচ্ছিন্না। বিবাহবিচ্ছেদের পর তাঁর সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে ওঠে ৩৬ বছরের বরুণ পাণ্ডের। তাঁরা লিভ ইন সম্পর্কে দিন কাটাতে থাকেন। সহবাস চলছিল। তবে তাতে চিড় ধরে গত ১ মাসে। লিভ ইন থেকে সরে আসেন পূজা। দুজন আলাদা থাকছিলেন। এই অবস্থায় বরুণের মনে হয় তাকে পূজা অবহেলা করছেন। তার এও মনে হয় যে পূজার সঙ্গে অন্য কোনও পুরুষের সম্পর্ক তৈরি হয়েছে। তাই তিনি আর বরুণের সঙ্গে লিভ ইনে রাজি হচ্ছেন না। বরুণ ডেকে পাঠায় পূজাকে।

দিল্লির মুনিরকা এলাকায় একটি ফ্ল্যাটে, যেখানে তাঁরা এতদিন লিভ ইন করেছেন সেখানে পূজা আসার পর তাঁকে একটি ধারাল ছুরি নিয়ে আক্রমণ করে বরুণ। ছুরির কোপ বসিয়ে দিতে থাকে পূজার শরীরে। চিত্‍কারে স্থানীয়রা ছুটে আসেন সেখানে। তাঁরা ধরে ফেলেন বরুণকে। রক্তাক্ত অবস্থায় পূজাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। স্থানীয়রা বরুণকে আটকে মারধর করার পর পুলিশ ডেকে তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেন।

পুলিশ বরুণ পাণ্ডেকে গ্রেফতার করেছে। তার বিরুদ্ধে হত্যার চেষ্টার মামলা রুজু করেছে পুলিশ। বরুণের তরফ থেকে তার বক্তব্য জানতে পারলেও পূজার সঙ্গে পুলিশ এখনও কথা বলে উঠতে পারেননি। পূজার যা পরিস্থিতি তাতে চিকিত্‍সকেরা পুলিশকে পূজার সঙ্গে কথা বলতে দিচ্ছেন না। গোটা ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়। – সংবাদ সংস্থার সাহায্য নিয়ে লেখা

আরও পড়ুন ::

Back to top button