জানা-অজানা

নারীরা ভুলেও এই পাঁচ কাজ করবেন না

নারীরা ভুলেও এই পাঁচ কাজ করবেন না - West Bengal News 24
Unhappy girl in a bedroom

স্বাস্থ্যের জন্য মধ্যবয়স অর্থাৎ ৪০-৬০ বছর পর্যন্ত খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু এ বয়সে বেশিরভাগ নারী ব্যস্ত থাকেন সংসার, কর্মজীবন, সামাজিক জীবন, দায়িত্ব-কর্তব্য নিয়ে। এসব চাপে নিজেদের যত্ন নেওয়ার বিশেষ সময় পান না তারা। এটি স্বাস্থ্যের দিক থেকে একদম ভালো নয়। বিশেষজ্ঞদের মতে, এটি আপনাকে মানসিক এবং শারীরিকভাবে সম্পূর্ণভাবে ক্লান্ত করে দিতে পারে।

মধ্য বয়স এমন একটি সময় যখন শরীরে বেশ কিছু সমস্যা দেখা দেয়। যেমন জয়েন্টে ও হাতে ব্যথা, পেট খারাপ, ওজন বৃদ্ধিসহ আরও অনেক সমস্যা। যা এ বয়স থেকেই শুরু হয়ে যায়। এমন পরিস্থিতিতে নারীদের মানসিক ও শারীরিকভাবে নিজেদের প্রতি আরও বেশি মনোযোগ দিতে হবে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, নতুন প্রজন্মের মেয়েরা কী কী করছেন, এ সব দিকে নজর দেওয়া প্রয়োজন।

এই সময়ের প্রতিবেদনে এমনই ৫টি ভুলের কথা বলা হয়েছে, যা ৪০-৬০ বছর বয়সে প্রত্যেক নারীদের এড়িয়ে চলা উচিত। চলুন এক নজরে দেখে নেওয়া যাক-

হার্টের স্বাস্থ্যের অবহেলা করা
হার্ট বা হৃদয় আপনার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ। এটি যত্ন নেওয়া এবং নিয়মিত পরীক্ষা করা বিশেষ প্রয়োজন। বিশেষ করে ৪০-এর পর অনেক যত্ন নিতে হয়। হার্টের স্বাস্থ্যের ইঙ্গিতগুলোর মধ্যে রয়েছে রক্তচাপ, রক্তে শর্করার মাত্রা, বডি মাস ইনডেক্স এবং কোলেস্টেরল পর্যবেক্ষণ রাখা। এ সব কিছুর পরিবর্তন উপেক্ষা করা মানে নিজের স্বাস্থ্যের অবহেলা করা।

আরও পড়ুন :: ছবিটি নারী না পুরুষের? আপনার উত্তরই বলে দেবে আপনি কেমন মানুষ!

চুলের প্রতি যত্ন না নেওয়া
আপনার চুলের দৈর্ঘ্য আপনার বয়স দ্বারা নির্ধারিত হয় না এবং করাও উচিত নয়। কিন্তু বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে চুলের মান খারাপ হতে শুরু করে। তাই এ বয়সে চুলের যত্ন নিতে হবে বেশি করে। বয়স ৪০ পেরিয়ে গেছে ভেবে চুল সংক্রান্ত সমস্যাগুলোকে কখনই অবহেলা করবেন না। বিভিন্ন হেয়ারস্টাইল চেষ্টা করুন। মনও ভালো থাকবে।

স্বাস্থ্যের দিকে মনোযোগ না দেওয়া
পরিবার ও সন্তানের খেয়াল রাখতে গিয়ে নারীরা নিজেদের স্বাস্থ্যের দিকে মনোযোগ দিতে পারেন না। এটা এতটাই বড় ভুল যে এর ফল ভোগ করতে হয় পরবর্তী সময়ে। এ কারণে প্রত্যেক নারীর উচিত এক ঘণ্টা ধ্যান করা ও হাঁটা। যা আপনাকে ফিট এবং সুস্থ রাখতে সাহায্য করবে। নিজেকে রিচার্জ করতেও সাহায্য করবে।

ভিটামিন বি-১২ এর অভাব উপেক্ষা করা
নারীদের বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে পাকস্থলীতে অ্যাসিডের পরিমাণ কমে যায়। ভিটামিন বি-১২ এর অভাবে ৪০-৬০ বছর বয়সী বেশিরভাগ নারীদের মধ্যে স্ট্রেসে ভুগতে থাকেন। ক্যালসিয়াম এবং ভিটামিন ডি ছাড়া শরীরকে যেমন সুস্থ রাখা যায় না তেমনই ভিটামিন বি-১২ না থাকলে শরীরে সমস্যা দেখা দেয়। মধ্য বয়সে প্রতিটি নারীর তার খাদ্যতালিকায় ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবার রাখা উচিত। যেমন ডিম, মাংস, দুগ্ধজাত খাবার রাখুন।

বার্ধক্য মেনে না নেওয়া
৪০ বছর হওয়ার পর অনেক নারীরাই নিজেদের বয়স মেনে নিতে পারেন না। নিজেকে তরুণ রাখতে চান অনেকেই। তাদের বোঝা উচিত যে বার্ধক্য একটি প্রাকৃতিক প্রক্রিয়া, যা সবার সঙ্গেই ঘটবে, সুতরাং মেনে নিন যে আপনি এখন বৃদ্ধ বয়সের দিকে এগিয়ে যাচ্ছেন। যদিও এ বয়সেও অনেক সুবিধা এবং মজা রয়েছে, যা প্রতিটি নারীরই অনুভব করা উচিত।

আপনার বয়স যদি ৪০-৬০ এর মধ্যে হয়, তাহলে এখানে উল্লেখিত ভুলগুলোর দিকে মনোযোগ দিতে শুরু করুন। সারাজীবন সুস্থ থাকবেন।

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button