‘‌যদি আমি সুশান্তকে আগলে রাখতাম, ও ঠিক বেঁচে থাকত : অঙ্কিতা


‘‌যদি আমি সুশান্তকে আগলে রাখতাম, ও ঠিক বেঁচে থাকত : অঙ্কিতা
সুশান্ত সিং রাজপুত ও অঙ্কিতা লোখন্ডে

একটি জাতীয় সংবাদমাধ্যমে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যু নিয়ে নিজের অবস্থান একেবারে স্পষ্ট করে দিলেন অঙ্কিতা লোখান্ডে।

দীর্ঘদিন সম্পর্কে ছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত ও অঙ্কিতা। আজ সুশান্তের মৃত্যুর পর সেই দিনগুলোর কথা যেন আরও বেশি করে মনে পড়ছে অঙ্কিতা‌র। তাই সাক্ষাৎকারে মনের কথা বললেন তিনি। বললেন, তিনি যদি আজও সুশান্তের সঙ্গে থাকতেন, তাহলে এই দিনটা আর দেখতে হত না। হতে পারে সুশান্ত হয়ত বেঁচে থাকতেন।

[ আরও পড়ুন : কঙ্গনাকে গ্রেপ্তারের দাবি ]

সুশান্তের মৃত্যুর পর তাঁর পরিবারের সঙ্গে দেখা করেছেন কি না, এই প্রশ্নের উত্তরে অঙ্কিতা জানালেন, ওই পরিবারের রাজকুমার ছিলেন সুশান্ত। সুশান্তের দিদি রানি অঙ্কিতাকে বলেছেন, মুম্বই তাঁদের সংসারের সব শেষ করে দিল। বেশি কথা বলতে পারছিলেন না ওঁরা।

‘‌যদি আমি সুশান্তকে আগলে রাখতাম, ও ঠিক বেঁচে থাকত : অঙ্কিতা


তিনি কী কাউকে এই বিষয়ে দোষ দিতে চান, এই প্রশ্নের উত্তরে অঙ্কিতা বলেছেন, কাউকে আলাদা করে দোষ দিতে চান না তিনি। তবে তিনি জানতেন, সুশান্ত ভাল আছেন। কিন্তু শেষ একবছরে যতবার দেখা হয়েছে সুশান্তের সঙ্গে, ততবার চোখে সেই আনন্দ দেখতে পাননি তিনি, এটাও বলেছেন। তবু, সুশান্ত যখন চাইছেন ওভাবেই থাকতে, তখন অঙ্কিতা আর কিছু বলেননি।

[ আরও পড়ুন : সন্ধান মিলছে না রিয়ার, খুঁজে বার করার চেষ্টা চলছে : বিহার পুলিশ ]

পুলিশের তদন্ত নিয়েও তিনি বিহার পুলিশের দিকে ঝুঁকে রয়েছেন। তিনি বলেছেন, ‘‌পাপা (‌সুশান্তের বাবা)‌ যখন অভিযোগ করেছেন, তখন নিশ্চিত হয়েই করেছেন। আমার মনে হয় বিহার পুলিশের মাধ্যমেই তদন্ত হওয়া দরকার।’‌

‘‌যদি আমি সুশান্তকে আগলে রাখতাম, ও ঠিক বেঁচে থাকত : অঙ্কিতা

তিনি একটা কথা একবাক্যে স্বীকার করেছেন, সুশান্তের মৃত্যু আত্মহত্যা না খুন, সে বিষয়ে এখনও স্পষ্ট করে কিছু বলার সময় আসেনি। তিনি শুধু চান, সুশান্ত যেন ন্যায়বিচার পায়। সত্যি যেন শেষ পর্যন্ত সামনে আসে। তাঁর পরিবার, বন্ধু, সবাই যেন সেই সত্যিটা সামনে থেকে দেখতে পায়।

[ আরও পড়ুন :  অবশেষে প্রধানমন্ত্রীর দ্বারস্থ দিদি শ্বেতা, মোদিজি আপনি একটু দেখুন’, সুশান্তের মৃত্যু তদন্ত নিয়ে এবার ]

 

সুত্র: News18

Recommended For You