বলিউডরাজনীতি

কয়েকদিনের ব্যবধানে তৃণমূলের পর, বিজেপি প্রার্থীর হয়ে ভোট চাইতে দেখা গেল গ্ল্যাম গার্ল মহিমা চৌধুরীকে


আজকাল ওয়েবডেস্ক: মাত্র কয়েকদিনের ব্যবধানে তৃণমূলের পর, বিজেপি প্রার্থীর হয়ে ভোট চাইতে দেখা গেল গ্ল্যাম গার্ল মহিমা চৌধুরীকে।

৫ এপ্রিল কামারহাটিতে প্রাক্তন মন্ত্রী ও তৃণমূল প্রার্থী মদন মিত্রর হয়ে প্রচারে রোড শো করেন তিনি। বিশাল মিছিল চলাকালীন ‘খেলা হবে’ স্লোগানও বারবার তাঁকে বলতে শোনা যায়। সেই সময় মদন মিত্র জানান, ২০১১ সালে তাঁর হয়ে বাংলায় প্রচার করতে এসেছিলেন মহিমা চৌধুরী। সেবার তিনি জিতেছিলেন। আরও একবার আসায় তিনি বেশ উত্তেজিত।

আরও পড়ুন : গণতন্ত্রের কালো দিন! নির্বাচন কমিশনের এক হাত নিলেন নুসরত

এক সুর বিধাননগর বিধানসভা কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী সব্যসাচী দত্তের গলাতেও। সোমবার দমদম পার্ক, দক্ষিণদাড়ি এলাকায় সকাল থেকে রোড শো করেন তিনি। হুড খোলা জিপে ঘুরতে ঘুরতেই মহিমা বলেন, ‘যখন মেয়র ছিলেন, তখন সাধারণ মানুষের জন্য অনেক কাজ করেছেন সব্যসাচী দত্ত। ওনাকে ভোট দেওয়া জরুরি।

‘ সবাই যাতে ওনার পাশে থাকেন, সেই আবেদনও করেছেন তিনি। মহিমাকে পাশে পেয়ে মদন মিত্রর মতোই উত্তেজিত প্রার্থী সব্যসাচী দত্ত। বললেন, ‘আমি যখন যেখানে, মহিমা তখন সেখানে। এর আগে আমি যখন মেয়র ছিলাম, তখনও উনি প্রচার করতে এসেছিলেন।’

প্রার্থী এবং তারকা-ক্যাম্পেনারের বক্তব্যের পরেই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক বিতর্ক। মাত্র সাত দিনের ব্যবধানে বিরোধী দলের হয়ে প্রচার করায়, অভিনেত্রীকে বিঁধছেন বহু সাধারণ মানুষ। একুশের বিধানসভা নির্বাচনে একের পর এক বলি তারকার ঝকমকানিতে জমে উঠেছে বঙ্গ রাজনীতি।

একদিকে বিজেপির তারকা-ক্যাম্পেনার মহাগুরু মিঠুন, অন্যদিকে তৃণমূলের হয়ে বাংলার ‘ধন্যি মেয়ে’ জয়া বচ্চন ইতিমধ্যেই প্রচারে সাড়া ফেলেছেন। এঁদের মাঝে মহিমা অন্যভাবেই লাইম লাইট কেড়ে নিলেন যেন।

আরও পড়ুন ::

Back to top button