জাতীয়

পাঞ্জাবে নয়া চমক ক্যাপ্টেনের! ১৫ দিনের মধ্যেই খুলতে পারেন নতুন দল, অমরিন্দরের দ্বারে হাজির এক ডজন কংগ্রেস নেতা

Amarinder Singh : পাঞ্জাবে নয়া চমক ক্যাপ্টেনের! ১৫ দিনের মধ্যেই খুলতে পারেন নতুন দল, অমরিন্দরের দ্বারে হাজির এক ডজন কংগ্রেস নেতা - West Bengal News 24

বুধবারই সাফ জানিয়ে দিয়েছিলেন বিজেপিতে যাচ্ছেন না, আবার কংগ্রেসেও থাকতে নারাজ তিনি। এই পরিস্থিতিতে এবার নতুন জল্পনা শোনা গেল যে, নিজের আলাদা দল গড়তে চলেছেন পঞ্জাবের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং (Amarinder Singh)। সূত্রের দীবি, আগামী ১৫ দিনের মধ্যেই তিনি নতুন দল (New Party) তৈরি করবেন।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রীর পদ ছাড়ার পরই যেভাবে দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছিলেন, তাতেই বোঝা গিয়েছিল কংগ্রেসে আর থাকতে চান না অমরিন্দর সিং। তাঁর পরবর্তী পদক্ষেপ নিয়ে জল্পনার মাঝেই গত বুধবার তিনি কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করেন। এরপরই জল্পনা শুরু হয় তাঁর বিজেপিতে যোগ দেওয়া ঘিরে।

যদিও গতকালই অমরিন্দর সিং নিজেই জানিয়ে দেন তিনি বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন না। তবে কংগ্রেসের সঙ্গেও আর সম্পর্ক রাখতে নারাজ তিনি। এরপরই শোনা যাচ্ছে, আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের আগেই নতুন দল গড়তে চলেছেন অমরিন্দর সিং। আগামী ১৫ দিনের মধ্যেই তিনি এই নতুন দলের ঘোষণা করতে পারেন তিনি।

আরও পড়ুন : দুই ডোজ টিকা নিয়েও করোনায় আক্রান্ত ২৮ জন ডাক্তারি পড়ুয়া, চাঞ্চল্য মুম্বইয়ের মেডিক্যাল কলেজে

সূত্রের আরও দাবি, ইতিমধ্যেই বহু কংগ্রেস নেতা অমরিন্দর সিংয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন এবং দলবদলের ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন। আপাতত প্রায় ১২ জন কংগ্রেস নেতা প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন বলে জানা গিয়েছে। এ দিকে, অমরি্ন্দর সিং নিজেও আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই কৃষক নেতাদের সঙ্গে দেখা করতে পারেন বলে জানা গিয়েছে।

বুধবার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকেও কৃষি আইন ও কৃষক আন্দোলন নিয়েই আলোচনা করেছেন বলে জানিয়েছিলবেন অমরিন্দর সিং। আসন্ন নির্বাচনের আগেই যে নতুন দল আনতে চলেছেন অমরিন্দর সিং, তার প্রচারের প্রধান বিষয় হতে চলেছে এই কৃষি আইন ও কৃষক আন্দোলন, তা ভালভাবেই বোঝা যাচ্ছে।

একই সঙ্গে পঞ্জাবের নিরাপত্তা বিষয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন অমরিন্দর সিং। আন্তর্জাতিক সীমান্তবর্তী রাজ্য হওয়ায় এর আগেও মুখ্য়মন্ত্রী থাকাকালীন অমরিন্দর সিং একাধিকবার রাজ্যের নিরাপত্তা ও সুরক্ষা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। সম্প্রতিই নভজ্যোত সিং সিধু পঞ্জাব প্রদেশ কংগ্রেসের সভাপতির পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার পরও তিনি বলেছিলেন, “পঞ্জাবের মতো সীমান্তবর্তী রাজ্যের দায়িত্ব সামলানোর জন্য উপযুক্ত নন সিধু।”

এ দিকে, অপর এক সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, অমরিন্দর যদি বিজেপিতে যোগ দেন, তবে মন্ত্রিসভায় তাঁকে জায়গা দেওয়া হতে পারে। কৃষিনির্ভর রাজ্য পঞ্জাব থেকে আসায় তাঁকে সম্ভবত কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রীর পদই দেওয়া হতে পারে। যদি অমরিন্দর বিজেপিতে নাও যোগদান করেন, তবে আলাদা দল তৈরি করতেও সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছে বিজেপি, এমনটাই জানা গিয়েছে।

সূত্র: টিভি ৯

আরও পড়ুন ::

Back to top button