খেলা

একাধিক শর্ত মেনে আরব দেশেই হবে আইপিএল ২০২০



 

ওয়েবডেস্ক : অবশেষে সব জল্পনার অবসান। ফের বিদেশে পারি দিচ্ছে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ। আরব আমিরশাহিকেই আইপিএলের ভেন্যু হিসেবে বেছে নিলেন বিসিসিআই কর্তারা। শুক্রবার বিসিসিআইয়ের অ্যাপেক্স কমিটির বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

আইপিএলে আয়োজনের জন্য বিসিসিআইকে প্রস্তাব দিয়েছিল আরব আমিরশাহি ও শ্রীলঙ্কা। কিন্তু সব দিক বিচার করে আরব দেশকেই বেছে নিয়েছেন কারণ, ২০১৪ সালে দেশে লোকসভা নির্বাচন থাকায় টুর্নামেন্টের প্রথম লেগ আমিরশাহিতেই আয়োজিত হয়েছিল।

ফলে এই বিপুল আয়োজনের অভিজ্ঞতা তাদের রয়েছে। তাছাড়া সেখানকার কোয়ারেন্টাইনের মেয়াদও কম। যা মনে ধরেছে বিসিসিআইয়ের। ফলে শেষমেশ ভারতে আয়োজনের কোনও সম্ভাবনা না থাকলে আরব দেশেই হবে আইপিএল।

প্রতিযোগিতার জন্য দিনক্ষণ নির্ধারিত করা হয়েছে অক্টোবর নভেম্বর।অর্থাত্‍ বিসিসিআই নিশ্চিত্‍ যে তলতি বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ বাতিল হতে চলেছে। সেই উইন্ডোতেই আইপিএল করা স্থির করেছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।

যদিও আমিরশাহিকে বেছে নিলেও একাধিক শর্ত রয়েছে বিসিসিআইয়ের। প্রথমম,বিসিসিআই ধরে নিচ্ছে টি-২০ বিশ্বকাপ বাতিল হতে চলেছে। সেক্ষেত্রে আইপিএল আয়োজনের প্রথম শর্তই হল, আইসিসির তরফে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া টি-২০ বিশ্বকাপ স্থগিত ঘোষণা।


আরও পড়ুন : বড় ধরনের আর্থিক ক্ষতির মুখে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড

দ্বিতীয়ত,দেশের মাটিতে হোক, অথবা বিদেশে, আইপিএল আয়োজনের জন্য সরকারি অনুমতি পাওয়া বাধ্যতামূলক। আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপ স্থগিতের কথা জানালে সরকারি অনুমতির জন্য আবেদন করবে বিসিসিআই।

জানতে চাওয়া হবে, ঘরের মাঠে আইপিএল আয়োজন করা সম্ভব কিনা। খতিয়ে দেখা হবে ভারতেই টুর্নামেন্ট আয়োজনের সম্ভাবনা। যদি করোনা পরিস্থিতি অনুকূল না হয়, তবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগ আমিরশাহিতে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে।

তৃতীয়ত, দুবাইতে আইপিএল হলে তার ক্রীড়াসূচিতে কিছু কাটছাট হতে পারে। গোটা প্রতিযোগিতাকে কমিয়ে ৫ থেকে ৬ সপ্তাহের করা হতে পারে। আইপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলিও মেনে নিয়েছে বিসিসিআইয়ের সিদ্ধান্তকে।

বিসিসিআইয়ের তরফ থেকে এই ইঙ্গিত পেয়েই আইপিএল আয়োজনের প্রস্তুতি নিতে শুরু করে দিল দুবাই ক্রিকেট সংস্থা। দুবাই স্পোর্টস সিটির মধ্যেই দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়াম খেলাগুলি হতে পারে। এখানে আইসিসি-র অ্যাকাডেমিও রয়েছে।

দুবাই স্পোর্টস সিটির প্রধান সালমান হানিফ জানিয়ে দিলেন,’তারা আইপিএল আয়োজনের সমস্ত পরিকল্পনা তৈরি রাখছে।স্টেডিয়ামে ন’টা পিচ রয়েছে। অল্প সময়ের মধ্যে যা অনেক ম্যাচ আয়োজন করতে পারা যাবে।

আরও পড়ুন : গাছে চড়ে কথা বলতেন, আম্পায়ারের দুর্দশা কাটাতে নেটওয়ার্ক বসাল জিও

পিচ যাতে ঠিক থাকে, সেইজন্য আপাতত আর কোনও ম্যাচ এখানে খেলা হবে না।’ ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরাও মনে করছেন, দেশের করোনা পরিস্থিতির যা অবস্থা তাতে আরব দেশেই আইপিএল হওয়া নিশ্চিত।

 

 

 

সুত্র: Asianet বাংলা


Related Articles

Back to top button