ওপার বাংলা

যেভাবে ঘটলো রাজশাহীর মর্মান্তিক দুর্ঘটনা


যেভাবে ঘটলো রাজশাহীর মর্মান্তিক দুর্ঘটনা - West Bengal News 24


বেপরোয়া গতির কারণেই রাজশাহীর কাটাখালীতে সড়ক দুর্ঘটনায় ১৭ জনের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (২৬ মার্চ) দুপুর পৌনে ২টার দিকে রাজশাহী-ঢাকা মহাসড়কের কাটাখালী থানার সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

রাস্তার পাশের সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা পড়েছে দুর্ঘটনার দৃশ্য। তাতে দেখা যায়, মহাসড়কের পাশের গাছতলায় আগে থেকেই একটি সাদা রঙয়ের লেগুনা দাঁড়িয়েছিল। দুপুর ১টা ৪০ মিনিটে বাঁশ নিয়ে একটি ভ্যান রাজশাহীর দিকে যায়। পেছন থেকে কালো রঙের একটি মাইক্রোবাস ভ্যানটিকে অতিক্রম করার চেষ্টা করে।

ওই সময় দ্রুতগামী হানিফ পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস চলে এলে মাইক্রোবাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। ছিটকে গিয়ে বাসটি থানার সামনের মহাসড়ক থেকে নেমে গিয়ে গাছের সঙ্গে আটকে যায়। মাইক্রোবাসটিতে গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে আগুন ধরে যায়। সেই আগুন পাশে থাকা লেগুনায় ছড়িয়ে পড়ে।

রাজশাহী ফায়ার সার্ভিসের সহকারী পরিচালক মো. আব্দুর রশিদ বলেন, বেপরোয়া গতির কারণে এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। বাস-মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষের পর মাইক্রোবাসটিতে থাকা গ্যাস সিলিন্ডার ফেটে আগুন ধরে যায়। এতে মাইক্রোবাসের চালকসহ সবাই মারা যান।

আরও পড়ুন : এক পরিবারের সবাই পুড়ে ছাই

দুর্ঘটনার পর আটজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা। হাসপাতালে এদের মধ্যে ছয়জন মারা যান। দুর্ঘটনার পর আগুনে পোড়া মাইক্রোবাসটি থেকে নারী ও শিশুসহ ১১ জনের অঙ্গার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মর্মান্তিক এই দুর্ঘটনায় সবমিলিয়ে ১৭ জন মারা গেছেন।


নিহতরা রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার বাসিন্দা। চার পরিবার তাদের ছেলে-মেয়েদের নিয়ে আত্মীয়ের বাড়ি বেড়াতে রাজশাহীতে আসছিল। পথে দুর্ঘটনার কবলে পড়ে প্রাণ হারান তারা।

সূত্র : ঢাকাপোস্ট


Related Articles

Back to top button