অপরাধ

নাবালিকার অশালীন ভিডিয়ো বানিয়ে ভাইরাল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ক্রমাগত ধর্ষণ, গ্রেফতার যুবক

এক পরিচিত নাবালিকার অশালীন ভিডিয়ো বানিয়েছিল সদ্য ১৮-এ পা দেওয়া ওই যুবক। সোশ্যাল মিডিয়ায় সেই ভিডিয়ো ভাইরাল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়েই ক্রমাগত ধর্ষণ (Sexual Abuse) করত নাবালিকাকে (Minor Girl)। কিন্তু একটা সময়ে ওই নাবালিকাও সাহস সঞ্চয় করে জানিয়েছিল, তাঁর কথা আর শুনবে না সে। ব্যস, প্রতিশোধ নিতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল (Viral Video) করে দিল সেই ভিডিয়ো। নাবালিকার অভিযোগের ভিত্তিতে অবশেষে শনিবার গ্রেফতার করা হল ওই যুবককে।

ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর প্রদেশ(Uttar Pradesh)-র মাহোবায়। নির্যাতিতার বয়ানের ভিত্তিতে জানা গিয়েছে, ওই যুবক কোনও এক ফাঁকে নাবালিকার অশালীন ভিডিয়ো বানায়। অগস্ট মাসেই তাকে সেই ভিডিয়ো দেখায় এবং ব্ল্যাকমেইল করতে থাকে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিয়ো ভাইরাল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ওই নাবালিকাকে একাধিকবার ধর্ষণ করে সে।

আরও পড়ুন : বেলুন কিনে দেওয়ার টোপ দিয়ে শিশুকন্যাকে ধর্ষণ, পলাতক অভিযুক্ত

তবে বারংবার শারীরিক নির্যাতনের মুখে পড়ে ১৫ বছরের ওই কিশোরী রুখে দাঁড়ায়। ওই যুবককে সাফ জানিয়ে দেয়, তাঁর কথা আর শুনবে না সে। যুবকের হাজার ভয় দেখানোতেও সিদ্ধান্ত বদল করেনি সে। কিন্তু কয়েকদিন বাদেই কিশোরী জানতে পারে, সত্যিই ওই যুবক সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর ভিডিয়ো পোস্ট করে দিয়েছে।

বাধ্য হয়ে পরিবারের কাছে সমস্ত ঘটনা খুলে বলে ওই কিশোরী। এরপরই তাঁর বাবা এসে মাহোবা থানায় ওই যুবকের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশও দ্রুত পদক্ষেপ করে ওই যুবককে গ্রেফতার করে। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাজেন্দ্র কুমার গৌতম জানান, ওই কিশোরীর মে়ডিক্যাল পরীক্ষার জন্য তাঁকে সরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেই রিপোর্ট পেলে ধর্ষণের বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যাবে এবং সেই অনুযায়ী পরবর্তী আইনি পদক্ষেপ করা যাবে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জানান, নাবালিকার বাবার অভিযোগের ভিত্তিতেই অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই নির্যাতিতার বয়ানও রেকর্ড করা হয়েছে। ওই নাবালিকা জানিয়েছে, যুবকের কুপ্রস্তাবে সাড়া দেওয়া বন্ধ করতেই প্রতিহিংসার বশে এই কাণ্ড ঘটিয়েছে অভিযুক্ত।

সূত্র: টিভি ৯

আরও পড়ুন ::

Back to top button