জাতীয়

গণধর্ষণ মামলায় আগাম জামিন পেলেন কৈলাস বিজয়বর্গীয়

নিজের দলের এক নারী নেত্রীকে গণধর্ষণ মামলায় আগাম জামিন পেয়েছেন বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাস বিজয়বর্গীয়। একই মামলায় আরও দুই আরএসএস নেতা জিষ্ণু বসু এবং প্রদীপ যোশীরও আগাম জামিন মঞ্জুর করেছে কলকাতা হাইকোর্ট।

বৃহস্পতিবার বিচারপতি হরিশ ট্যান্ডন ও বিচারপতি কৌশিক চন্দের ডিভিশন বেঞ্চ এ জামিন মঞ্জুর করে। খবর ইন্ডিয়া টুডে, নিউজ এইটিন ও খবর অনলাইনের।

খবরে বলা হয়, ২০১৮ সালে এক বিজেপি নেত্রীকে ফ্ল্যাটে গিয়ে গণধর্ষণের মামলায় অন্তর্বর্তীকালীন আগাম জামিন পেয়েছেন এই তিন নেতা। আগামী ২৫ অক্টোবর পর্যন্ত ১০ হাজার টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে এই তিন নেতার জন্য অন্তর্বর্তীকালীন আগাম জামিন মঞ্জুর হয়েছে।

একইসঙ্গে দুই বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ নিজেদের পর্যবেক্ষণে জানিয়েছে, নিম্ন আদালতের সিদ্ধান্ত সঠিক ছিল না। কিছুটা হলেও তাদের পর্যবেক্ষণে সমালোচিত হয়েছে নিম্ন আদালতের রায়।

আরও পড়ুন : না শোধরালে ফের সার্জিক্যাল স্ট্রাইক! সীমান্তে অশান্তি নিয়ে পাকিস্তানকে হুঁশিয়ারি অমিত শাহর

গত ১ অক্টোবর নিম্ন আদালতের রায়ে বলা হয়েছিল, যৌন হেনস্থা বা ধর্ষণের ঘটনা নিগৃহীতা দেরিতে অভিযোগ জানালেও বিচারের সুযোগ থেকে বঞ্চিত হতে পারেন না।

নিম্ন আদালতের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে ইতিমধ্যেই সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেছে তিন নেতা।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ২৯ নভেম্বর শরৎ বোস রোডের একটি ফ্ল্যাটে এক নারীকে গণধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত হন বিজেপির এই তিন নেতা। একই সঙ্গে এই ঘটনার পর থেকেই ধর্ষিতা এবং তার পরিবারকে খুনের হুমকি দেওয়া শুরু হয়।

২০২০ সালে আলিপুর নিম্ন আদালতের দ্বারস্থ হন ওই মহিলা। সেখানে তিনি গণধর্ষণের অভিযোগ করেন। এফআইআর দায়ের করার আবেদন জানান বিচারকের সামনে। এফআইআর দায়ের করার আবেদন খারিজ করে আলিপুর আদালত।

আরও পড়ুন ::

Back to top button