আন্তর্জাতিক

শ্রীলঙ্কায় মূল বিক্ষোভস্থলে সেনা অভিযান, গ্রেফতার শতাধিক

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে সরকারবিরোধী মূল বিক্ষোভস্থলে অভিযান চালিয়েছে দেশটির নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এসময় বিক্ষোভকারীদের তাবু ভেঙে দেওয়া হয়েছে।

দেশটির নতুন প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমাসিংহ শপথ নেওয়ার পর এ অভিযান চালানো হলো।

শুক্রবার (২২ জুলাই) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট কার্যালয়ের কাছে ওই বিক্ষোভস্থলে অভিযানে শত শত সেনা ও পুলিশ সদস্য অংশ নিয়েছেন।

দেশটির স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম নিউজ ফার্স্টে বলা হয়, বিক্ষোভস্থল থেকে কয়েকজনকে আটক করা হয়েছে। এবং বিক্ষোভকারীরা যেসব তাবুতে থাকতেন সেগুলো ভেঙে দেওয়া হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সেনারা গত এপ্রিল থেকে হাজার হাজার সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের রসদ সরবরাহের জন্য এলাকায় স্থাপিত বেশ কয়েকটি অস্থায়ী কাঠামো অপসারণ করেছে। ঘটনাস্থল থেকে আটক করা হয়েছে শতাধিক বিক্ষোভকারীকে।

বিবিসির এক সাংবাদিক বলেছেন, তিনি বিক্ষোভস্থলের ছবি তোলার সময় সেনাবাহিনী তাকে মারধর করেছে। এসময় এক সেনা সদস্য তার ফোন ছিনিয়ে নেয় এবং ভিডিও মুছে দিয়েছে।

বিক্ষোভকারীদের ওপর রনিল বিক্রমাসিংহে যে চড়াও হতে পারেন সেই ইঙ্গিত আগেই দিয়েছিলেন। শপথ নেওয়ার পর পরই তিনি বলেছিলেন, সরকারকে ক্ষমতাচ্যূত করা কিংবা সরকারি কোনো ভবন দখল নেওয়া কোনো গণতান্ত্রিক কার্যক্রম নয়। তিনি ঘোষণা দিয়েছিলেন, এই ধরনের কোনো কিছু করা হলে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

গত বুধবার পার্লামেন্টে ভোটে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন রনিল বিক্রমাসিংহে। ২২৫ আসনের পার্লামেন্টে তিনি ভোট পেয়েছেন ১৩৪টি। যদিও বিক্ষোভকারীরা তাকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে মেনে নেননি। রনিলকে তাড়ানোর ঘোষণাও দিয়েছিলেন বিক্ষোভকারীরা।

সূত্র: এএফপি, বিবিসি

আরও পড়ুন ::

Back to top button