আন্তর্জাতিক

প্রকাশ্যে এসে প্রিগোজিনকে দিলেন যে বার্তা দিলেন পুতিন

প্রকাশ্যে এসে প্রিগোজিনকে দিলেন যে বার্তা দিলেন পুতিন
রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন

রাশিয়ায় ভাড়াটে সেনাদল ওয়াগনার গ্রুপের বিদ্রোহের অবসানের পর প্রথমবারের মতো প্রকাশ্যে এসেছেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। ক্রেমলিনের পক্ষ থেকে গতকাল সোমবার পুতিনের একটি একটি ভিডিও ভাষণ অনলাইনে পোস্ট করা হয়েছে।

ভিডিওতে, পুতিনকে একটি যুব শিল্প ফোরামে আগত অংশগ্রহণকারীদের উদ্দেশে রুশ প্রেসিডেন্টকে ভাষণ দিতে দেখা যায়। এতে তিনি ওয়াগনার গ্রুপ সংশ্লিষ্ট ঘটনাবলীর কোনো কিছু উল্লেখ করেননি। তবে ভাষণটি কখন রেকর্ড করা হয় তা স্পষ্ট নয়।

এ ছাড়া প্রেসিডেন্ট পুতিন গতকাল ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির সঙ্গে ফোনে কথা বলেছেন বলে ক্রেমলিনের এক বিবৃতিতে বলা হয়।

বিবৃতিতে ওয়াগনার বিদ্রোহের প্রতি ইঙ্গিত করে বলা হয়, ইরানি প্রেসিডেন্ট রুশ নেতৃত্বের প্রতি তার পূর্ণ সমর্থন প্রকাশ করেছেন। সংবাদদাতারা বলছেন, পুতিন ও তার সরকার যে তাদের স্বাভাবিক কাজকর্মে করে যাচ্ছেন এমন একটা চিত্রই তুলে ধরা হচ্ছে।

অন্যদিকে যে শহরটি ছিল ওয়াগনার গ্রুপের বিদ্রোহী তৎপরতার কেন্দ্র- সেই রোস্তভ-অন- ডনে ঐক্যের ডাক ও রক্তপাতের বিরুদ্ধে সতর্কবাণী সম্বলিত পোস্টার দেখা গেছে বলে খবর পাওয়া গেছে। টেলিগ্রামে স্থানীয় একটি চ্যানেলে এসব পোস্টারের ছবি দেখা যায়।

অন্যদিকে দেশত্যাগকারী নেতা প্রিগোজিনও এক বার্তায় বলেছেন, তিনি সরকার উৎখাতের জন্য মস্কো অভিমুখে যাত্রা শুরু করেননি। প্রায় ১১ মিনিট স্থায়ী অডিও বার্তায় প্রিগোজিন বলেন, তার সেনাদলের দুটি শহরের সামরিক স্থাপনা দখল ও মস্কোর দিকে যাত্রার লক্ষ্য ছিল প্রতিবাদ জানানো, সরকার উৎখাত করা নয়।

রুশ কর্তৃপক্ষ আগামী ১ জুলাই থেকে ওয়াগনার গ্রুপকে বন্ধ করে দিয়ে এর সৈন্যদেরকে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের আওতায় নিয়ে আসার পরিকল্পনা করেছিল। প্রিগোজিন বলছেন, তার গ্রুপ এর বিরোধী ছিল এবং কমান্ডাররা কেউই মন্ত্রণালয়ের সাথে কোন চুক্তিতে স্বাক্ষর করতে রাজি হয়নি।

তিনি আরও বলেন, ওয়াগনার গ্রুপকে সক্রিয় রাখার উপায় বের করতে বেলারুসের নেতা আলেক্সান্ডার লুকাশেংকো সহায়তা করেছেন।

প্রিগোজিন তার বার্তায় রুশ নিরাপত্তা বাহিনীর সমালোচনা করে দাবি করেন – ওয়াগনার গ্রুপকে প্রথম আক্রমণের দায়িত্ব দেয়া হলে অনেক আগেই ইউক্রেনে রাশিয়ার ‘বিশেষ সামরিক অভিযান’ শেষ হয়ে যেতো।

আরও পড়ুন ::

Back to top button