জানা-অজানা

১০ বছরে ৪৩০ কর্মীকে কোটিপতি বানালেন এই ব্যবসায়ী

১০ বছরে ৪৩০ কর্মীকে কোটিপতি বানালেন এই ব্যবসায়ী

একসময় একটি স্থানীয় রেস্টুরেন্টে বাসন ধোয়ার কাজ করতেন। বাবা সামান্য ঠিকাদারের কাজ করতেন। মা ছিলেন গৃহিণী। চার ভাইবোন নিয়ে অভাবের সংসারে বেড়ে উঠেছেন তিনি। আজ সেই ব্যক্তিই বিশ্বের বিজনেস টাইকুনদের মধ্যে একজন।

তিনি ব্রিটেনের ম্যাঞ্চেস্টারের ‘দ্য হাট গ্রুপ’-এর প্রতিষ্ঠাতা ম্যাথু মোল্ডিং। পড়াশোনা খুব একটা পছন্দ ছিল না তার। স্কুলের গণ্ডি পেরিয়ে কলেজে গিয়েছিলেন। কিন্তু কলেজে ঘন ঘন অনুপস্থিতির জন্য বিতাড়িত করা হয়। তারপর একটা গাড়ির যন্ত্রাংশের কারখানায় কাজ নেন।

তবে গণিত ও অর্থনীতিতে তুখোড় ছিলেন ম্যাথু। তার অর্থনীতির শিক্ষকই ম্যাথুর মধ্যে প্রতিভা দেখে কলেজে ফিরিয়ে আনেন। কলেজের গণ্ডি পেরিয়ে নটিংহ্যাম বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতি নিয়ে পড়াশোনা করেন।

আরও পড়ুন : ‘জুম’ দিয়ে বিশ্বজয়ের গল্প

২০০৪ সালে ম্যাথু তৈরি করেন ‘দ্য হাট গ্রুপ’। প্রথম দিকে অনলাইনে সিডি বিক্রি করতেন ম্যাথু। তারপর সেখান থেকে ধীরে ধীরে স্বাস্থ্য এবং সৌন্দর্য সংক্রান্ত দ্রব্য বিক্রির ওপর মনোনিবেশ করেন তিনি।

ম্যাথু এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, তার এই বিশাল সাম্রাজ্য গড়ে তোলার নেপথ্যে সংস্থার কর্মীদের বিশাল অবদান রয়েছে। তার সংস্থায় ৭৪ কর্মীই কোটিপতি। আর তাদের কোটিপতি করেছেন ম্যাথু নিজেই।

ম্যাথু জানিয়েছেন, গত ১০ বছরে ৪৩০ জন কর্মীকে তার সংস্থার শেয়ার উপহার হিসেবে দিয়েছেন। আজ তারা সবাই কোটিপতি। এমনকি তার গাড়িচালককেও সংস্থার অংশীদার বানিয়েছেন ম্যাথু। তিনিও এখন ৪০ হাজার পাউন্ডের মালিক।

আরও পড়ুন : বাংলার বধূর সিরিয়াল কিলার হয়ে ওঠার পেছনে করুণ ইতিহাস

ম্যাথু জানিয়েছেন, আগামী দিনে তার সংস্থার আরো শেয়ার কর্মীদের উপহার হিসেবে দেবেন। বর্তমানে ম্যাথুর সংস্থার মোট সম্পত্তির মূল্য ৮৩ কোটি পাউন্ড।

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button