জাতীয়

বন্দুকযুদ্ধের লাইভ কাভারেজে নিষেধাজ্ঞা করল কাশ্মীর পুলিশ


বন্দুকযুদ্ধের লাইভ কাভারেজে নিষেধাজ্ঞা করল কাশ্মীর পুলিশ - West Bengal News 24


ভারত শাসিত কাশ্মীরের পুলিশ বন্দুকযুদ্ধের লাইভ কাভারেজ প্রচারে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে। ঘটনার পর অঞ্চলটির সাংবাদিক এবং মিডিয়া অর্গানাইজেশন উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। তারা বলছে, এর মাধ্যমে জাতীয় নিরাপত্তা ঝুঁকির মধ্যে পড়বে।

গতসপ্তাহে দক্ষিণ কাশ্মীরে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা কাভার করার সময় পুলিশ এক ফটো সাংবাদিককে লাথি দেয়। এই ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পরলে সাংবাদিকদের প্রতি পুলিশের এমন আচরণের ব্যাপক সমালোচনা হয়। এরপর কর্তৃপক্ষ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা কাভার না করা সংবলিত নির্দেশনা দিল।

আরও পড়ুন : ভাঙল অতীতের সব রেকর্ড, দেশে একদিনে করোনা আক্রান্ত প্রায় ১ লক্ষ ২৭ হাজার

বৃহস্পতিবার বিকেলে ভারতের পুলিশ প্রধান বিজয় কুমার সাক্ষরিত এই নির্দেশনায় বিদ্রোহী গোষ্ঠীর সঙ্গে সংগঠিত ‘বন্দুকযুদ্ধের ঘটনাস্থলের কাছে’ এবং ‘কোনো বন্দুকযুদ্ধের লাইভ কাভারেজ’ না করতে নির্দেশ প্রদান করা হয়। কাশ্মীরের বিদ্রোহীরা কয়েক দশক ধরে স্বাধীন রাষ্ট্র কিংবা প্রতিবেশি মুসলিম প্রতিবেশি দেশ পাকিস্তানের সঙ্গে এক হওয়ার জন্য ভারতের নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে যুদ্ধে লিপ্ত রয়েছে।

বিবৃতিতে পুলিশ এই নির্দেশনাকে `মত প্রকাশের স্বাধীনতার যৌক্তিক সীমাবদ্ধতা‘ বলে উল্লেখ করেন। এতে গণমাধ্যম সংস্থা এবং সাংবাদিকদের প্রতি পেশাদার ও বিশ্বস্ত দায়িত্ব পালনের সময় হস্তক্ষেপ না করার আহ্বান করা হয়। এছাড়া বিবৃতিতে আরও বলা হয়, অভিযানের এমন কোনো আধেয় প্রচার করা উচিত না যেটা সহিংসতা উসকে দেয় অথবা আইন-শৃঙ্খলা পালন বা জাতীয় অনুভূতির বিরুদ্ধে যায়।

পুলিশের এমন নির্দেশনার প্রতিবাদে কাশ্মীরের গণমাধ্যম সংস্থা এবং সাংবাদিকরা এক বিবৃতিতে এই অঞ্চলে কর্তৃপক্ষের গণমাধ্যমের টুঁটি চেপে ধরার অংশ হিসেবে এমন নির্দেশনা দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ করেন। সাম্প্রতিক বছরগুলোতে কাশ্মীরে সাংবাদিকদের স্বাধীনতা সীমাবদ্ধ করা হয়েছে। পুলিশ প্রায়ই সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে সমন জারি করে, এফআইআর দায়ের অথবা তাদেরকে পুলিশ স্টেশনে আসতে বাধ্য করে।



Related Articles

Back to top button