আন্তর্জাতিক

অবশেষে দেশে ফিরলেন গোতাবায়া!

কিছু ব্যতিক্রম বাদ দিলে রাজনীতির রোষ দীর্ঘস্থায়ী হওয়ার নজির কম। তবে সব নজিরকেই বোধহয় ছাপিয়ে গেল শ্রীলঙ্কা। দু’মাসও হয়নি, জনবিক্ষোভের মুখে প্রেসিডেন্ট প্যালেস থেকে পালিয়েছিলেন সে দেশের রাষ্ট্রপতি গোতাবায়া রাজাপক্ষে।

নৌ-সেনার ঘাঁটিতে কয়েকদিন কাটিয়ে তারপর দেশ ছাড়েন গোপনে। শ্রীলঙ্কার সেই সাবেক প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া শুক্রবার গভীর রাতে কলম্বোয় পা রাখলেন। গোপনে দেশ থেকে পালালেও ফিরলেন কিন্তু আগাম ঘোষণা করে। কিন্তু সাধারণ মানূষ তাঁর দেশে ফেরা আটকানোর বিন্দুমাত্র চেষ্টা করেনি।

হইতো নিরাপত্তার কথা ভেবেই মাঝরাতে ফেরানোর ব্যবস্থা হয়েছিল প্রাক্তন প্রেসিডেন্টকে। কিন্তু তাতে কি? গোতাবায়ার সমর্থকেরা গভীর রাতেও বিমান বন্দরে হাজির ছিলেন ফুল-মালা হাতে। কলম্বোর অদূরে বন্দরনায়েক আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান তিনি। অভ্যর্থনা জানাতে হাজির ছিলেন মন্ত্রী, নেতারাও।

প্রায় সাত সপ্তাহ স্বল্পমেয়াদি ভিসা নিয়ে থাইল্যান্ডে ছিলেন গোতাবায়া। তারপর যান সিঙ্গাপুর। কোনও দেশই তাঁকে রাজনৈতিক আশ্রয় দেয়নি। ট্যুরিস্ট ভিসা নিয়ে থাকছিলেন। ফলে দেশে ফেরা তাঁর জন্য অবশ্যম্ভাবী হয়ে পড়েছিল।

কিন্তু আশ্চর্যের হল, দু-মাস গড়ানোর আগেই তাঁর বিরুদ্ধে জনরোষের বরফ গলে জল হয়ে গিয়েছে অনেকটাই। কূটনৈতিক মহলের একাংশের মতে, আর্থিক দুর্দশা না কাটলেও, আন্তর্জাতিক মুদ্রা ভান্ডার শ্রীলঙ্কাকে দীর্ঘমেয়াদে বড় অঙ্কের ঋণ দিতে রাজি হওয়ায় পরিস্থিতি বদলের সম্ভাবনা আঁচ করে জনরোষে অনেকটাই ভাটা পড়েছে।

 

 

আরও পড়ুন ::

Back to top button