রাজ্য

লক্ষ্য একটাই – ইগোর লড়াই নয়! নীতীশ-তেজস্বী যাদবের সঙ্গে বৈঠকের পর স্পষ্ট বার্তা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

ওয়েস্ট বেঙ্গল নিউজ ২৪

লক্ষ্য একটাই - ইগোর লড়াই নয়! নীতীশ-তেজস্বী যাদবের সঙ্গে বৈঠকের পর স্পষ্ট বার্তা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

ব্যক্তিগত ইগোর লড়াই নয় , তিনি শুধু চান বিজেপি শূন্যে নেমে আসুক৷ নবান্নে নীতীশ কুমার (Neetish Kumar) এবং তেজস্বী যাদবের (Tejaswai Jadav) সঙ্গে বৈঠকের পর স্পষ্ট ভাষায় এমনই জানিয়ে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)৷ একই সঙ্গে বিরোধী দলগুলিকে নিয়ে বিহারে একটি ঘরোয়া বৈঠক করে ঐক্যবদ্ধ থাকার বার্তা দেওয়ার জন্য নীতীশ কুমারকে (Neetish Kumar) অনুরোধ করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী৷

নবান্নে এ দিন মমতা-নীতীশ-তেজস্বী বৈঠকের পর ফের একবার ২০২৪-এর নির্বাচনে বিরোধী জোট গঠন নিয়ে রাজনৈতিক মহলে জোরাল চর্চা শুরু হল৷ এদিন বেলা দুটোর কিছু আগে নবান্নে পৌঁছন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার (Neetish Kumar) এবং উপমুখ্যমন্ত্রী তেজস্বী যাদব (Tejaswai Jadav) ৷ মমতা নিজে নবান্নের গেটে এসে তাঁদের স্বাগত জানান৷ বৈঠক খুব বেশিক্ষণ না হলেও তার নির্যাস যে লোকসভা নির্বাচনে বিরোধী জোট গঠন নিয়েই ছিল, তা স্পষ্ট করে দেন মমতা এবং নীতীশ ৷

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে নীতীশ কুমার (Neetish Kumar) বলেন, ‘সব দলের একজোট হয়ে আগামী লোকসভা নির্বাচনের প্রস্তুতি নেওয়া উচিত৷ নিজেদের মধ্যে কথা বলা উচিত. যাতে দেশের ভাল হয়৷ যাঁদের হাতে এখন ক্ষমতা রয়েছে, তাদের দেশের ভালয় কিছু আসে যায় না৷ এখন দেশের উন্নয়ন কিছু হচ্ছে না৷ আজকে খুব ইতিবাচক আলোচনা হয়েছে৷ এর পরে প্রয়োজন অনুযায়ী আমরা অন্যান্য দলগুলির সঙ্গেও আলোচনায় বসব ৷’

মমতা (Mamata Banerjee) বলেন, ‘আমরা সবাই একসঙ্গে আছি৷ আমি নীতীশজিকে বলেছি সব বিরোধী দলকে নিয়ে বিহারে একটি বৈঠক ডাকতে৷ প্রচার, সভা সেসব তো পরে হবে, আগে একটা ঘরোয়া বৈঠক করে বার্তা দিতে হবে যে সবাই একসঙ্গে আছি৷ নীতীশজিকে আমি বলেছি, আমি চাই বিজেপি শুধু শূন্যে নেমে যাক , আর কিছু চাই না৷ এখানে ব্যক্তিগত কোনও ইগোর লড়াই নেই৷ দেশের মানুষ বিজেপি-র সঙ্গে লড়বে৷ সব দল একসঙ্গে লড়বে ৷ শুধু মিথ্যে প্রচার , ভিডিও বানিয়ে হিরো হয়ে আছে৷’

এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) সঙ্গে বৈঠকের পর উত্তর প্রদেশের লখনউয়ে গিয়ে সমাজবাদী পার্টির নেতা অখিলেশ যাদবের সঙ্গেও বৈঠক করার কথা রয়েছে নীতীশ- তেজস্বীর৷ কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে, মমতা- নীতীশ যে উদ্যোগ নিলেন তার সঙ্গে অন্যান্য গুলি সহমত হয়ে বিরোধী জোট গঠনের প্রক্রিয়া এগোবে নাকি অতীতের মতোই ফের একবার বিরোধীদের ছন্নছাড়া অবস্থারই ফায়দা নেবে বিজেপি৷

আরও পড়ুন ::

Back to top button