ঝাড়গ্রাম

বঞ্চনার বিরুদ্ধে আদিবাসীদের পথে নামতে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

স্বপ্নীল মজুমদার

বঞ্চনার বিরুদ্ধে আদিবাসীদের পথে নামতে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

কেন্দ্রের বঞ্চনার বিরুদ্ধে প্রয়োজনে তির ধনুক নিয়ে আদিবাসীদের পথে নামতে বললেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিজেপির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্র সরকারের সমালোচনা করে মমতার অভিযোগ, একশো দিনের কাজের টাকা দেওয়া হচ্ছে না।

কেন্দ্র সব টাকা কেটে নিচ্ছে। মানুষের সমস্যা হচ্ছে। মঙ্গলবার বিরসা মুন্ডার জন্মদিন উপলক্ষে বেলপাহাড়ির সাহাড়িতে প্রশাসনিকসভা করেন মুখ্যমন্ত্রী। দুপুরে কপ্টারে কলকাতা থেকে সরাসরি সভাস্থলে পৌঁছন। সেখানে বিরসার পূর্ণাবয়ব মূর্তির আবরণ উন্মোচন করেন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন সভাস্থল থেকে একই সঙ্গে পশ্চিম মেদিনীপুরের দু’জায়গায় বিরসার মূর্তির আনু্টানিক উন্মোচন করেন মমতা। সভায় তিনি বলেন, একশো দিনের কাজের টাকা আটকে রাজ্যের সাধারণ গরিব মানুষের সমস্যা বাড়াচ্ছে কেন্দ্র। মমতা বলেন, এক বছর আগে দিল্লি গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে এসেছিলাম। এবার কি পা ধরতে হবে।

বঞ্চনার বিরুদ্ধে আদিবাসীদের পথে নামতে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

টাকা না দিলে প্রদানমন্ত্রীর গদি ছাড়ার দাবি তুলে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘‘একশো দিনের টাকা দাও। নয়তো গদি ছেনে দাও।’’ কেন্দ্রের বঞ্চনার পাশাপাশি আদিবাসী উন্নয়নে রাজ্য সরকারের উদ্যোগে বাস্তাবায়িত নানা প্রকল্পের কথা সবিস্তারে বলেন মুখ্যমন্ত্রী। জঙ্গলমহলের অতীতের কথা মনে করিয়ে দিয়ে মমতা জানান, জঙ্গলমহল এখন ভাল আছে।

এদিন সভামঞ্চ থেকে ২৩টি প্রকল্পের উদ্বোধন ও ১২ টি প্রকল্পের শিলান্যাস করেন মুখ্যমন্ত্রী। সভা সেরে সড়ক পথে ঝাড়গ্রামে ফেরার সময়ে মালাবতী গ্রামে গাড়ি থামিয়ে আদিবাসী বাড়িতে ঢুকে পড়েন মুখ্যমন্ত্রী। একটি শিশুকে কোলে তুলে আদর করেন। বাসিন্দারা পানীয় জল, রাস্তা ঘাটের দাবি জানান।

বঞ্চনার বিরুদ্ধে আদিবাসীদের পথে নামতে বললেন মুখ্যমন্ত্রী

পরে মাগুরাতে রাজ্য সড়কের ধারে বৈদ্যনাথ মহন্তের দোকানে চপ ভাজেন মুখ্যমন্ত্রী একশোটি আলু ও ডিমের চপ কেনেন। সবাইকে খাওয়ান। ফেরার পথে বাসিন্দাদের অভাব-অভিযোগ শোনেন। ঝাড়গ্রাম টুরিস্ট কমপ্লেক্সে রাত্রিযাপন আজ, বুধবার দুপুরে কপ্টারে ফিরবেন মুখ্যমন্ত্রী।

আরও পড়ুন ::

Back to top button