আন্তর্জাতিক

পাকিস্তানজুড়ে ব্যাপক বিক্ষোভ, পেশোয়ারে নিহত ৪

Pakistan News Today : পাকিস্তানজুড়ে ব্যাপক বিক্ষোভ, পেশোয়ারে নিহত ৪ - West Bengal News 24

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে দেশব্যাপী বিক্ষোভে নেমেছেন পিটিআই নেতা-কর্মীরা। বুধবার রাজধানী ইসলামাবাদসহ দেশটির গুরুত্বপূর্ণ শহরে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ব্যাপক সংঘর্ষ হয়। বুধবার বিকেল ৫টা পর্যন্ত পাকিস্তানের পেশোয়ারে সহিংসতায় ৪ জন নিহত ও বহু আহতের খবর পাওয়া গেছে। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে জিও টিভি

স্থানীয় এক সাংবাদিকের বরাতে পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম জিও জানায়, পেশোয়ারে নিহতদের মরদেহ লেডি রিডিং হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। আহত ব্যক্তিদেরও উদ্ধার করে সেখানে নেয়া হয়েছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে তাদের পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, আহতরা হাতে ও পায়ে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

ওই সাংবাদিকের বরাতে ডন আরও জানায়, পেশোয়ারের রাস্তায় বিক্ষোভ আরও জোরালো হচ্ছে। পরিস্থিতি আরও খারাপের দিকে যাওয়ার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

এর আগে পাকিস্তান ‘অচল’ করে দেয়ার ডাক দিয়েছে পিটিআই। দলটির সমর্থকেরা দেশটির রাজধানী ইসলামাবাদ অভিমুখে যাত্রা শুরু করে আজ সকালে। এমন অবস্থায় নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে ইমরান-সমর্থকদের মধ্যে নতুন করে সংঘর্ষ বাধে।

ইসলামাবাদ পুলিশ দাবি করেছে, পিটিআই কর্মীরা তাদের লক্ষ্য করে পেট্রলবোমা ও ইটপাটকেল নিক্ষেপ করছে। এক টুইট বার্তায় ইসলামাবাদ পুলিশ জানায়, বিক্ষোভকারীরা সড়কে থাকা গাছ উপড়ে ফেলছে এবং রাষ্ট্রীয় সম্পত্তিতে আগুন ধরিয়ে দিচ্ছে।

এদিকে খাইবার পাখতুনখোয়ায় পেশোয়ারের জিটি রোডে জিন্না পার্কের কাছে বিক্ষোভকারীরা একটি অ্যাম্বুলেন্সে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে বলে জানা গেছে। পেশোয়ারের রেডিও পাকিস্তান ভবনে হামলা করেছে বিক্ষোভকারীরা।

রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমটির মহাপরিচালক তাহির হুসেন এক বিবৃতিতে জানান, দুর্বৃত্তরা নিউজরুম ও অডিওরুমে ঢুকে আসবাবপত্রে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। তারা অফিসের কর্মীদের ওপরও হামলা চালিয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার ইমরান খানকে গ্রেপ্তারের পর কয়েক লাখ পিটিআই সমর্থন রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করছেন। পাঞ্জাবে পিটিআইয়ের বিক্ষোভ থেকে প্রায় ১ হাজার জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এছাড়াও করাচিতে এ পর্যন্ত বিক্ষোভ থেকে প্রায় ২৭০ জনকে গ্রেপ্তারের খবর পাওয়া গেছে।

আরও পড়ুন ::

Back to top button