রাশিফল ও ভবিষ্যৎ

হাতের রেখা দেখে জেনে যাওয়া সম্ভব আপনার ছেলে সন্তান হবে কিনা!

এমন কথা শুনতে বড়ই আজব লাগে, তাই না! কিন্তু হাতের রেখায় অন্দরে যে এমন অনেক রহস্য লুকিয়ে থাকে, তা তো কারও অজানা নয়। সেই কারণেই তো অনেকেই নিজেদের সম্পর্কে নানা আজানা কথা জানতে অ্যাস্ট্রোলজির সাহায্য নিয়ে থাকেন। আপনিও কিন্তু আপনার হস্ত রেখা বিশ্লেষণ করে জেনে যেতে পারবেন কজন সন্তানের বাবা বা মা হতে চলেছেন।

শুধু তাই নয়, আপনার সন্তানের শারীরিক অবস্থা কেমন হবে, সে সম্পর্কেও ধরণা করে নেওয়া সম্ভব হয় হাতের রেখা বিশ্লেষণ করে। তাহলে আর অপেক্ষা কেন, এই প্রবন্ধটি পড়ে ফেলে জেনে ফেলুন আপনার সন্তানভাগ্য সম্পর্কে। প্রসঙ্গত, চাইনিজ পাল্মস্ট্রি অনুযায়ী আমাদের হাতের তালুতে থাকা বেশ কিছু রেখা এ সম্পর্কে একাধিক তথ্য প্রদান করে থাকে। আর এইসব রেখাগুলি থাকে মূলত কেড়ে আঙুলের একেবারে নিচে।

এবার প্রশ্ন হল, অ্যাস্ট্রোলজার না হয়েও কী এই রেখাগুলির ঠিক ঠিক বিশ্লেষণ করা সম্ভব? একেবারেই সম্ভব! তবে তার জন্য এই প্রবন্ধটি একবার আপনাকে পড়ে ফেলতেই হবে।

জমজ বাচ্চার ক্ষেত্রে: উপরের ছবিতে যেমন দেখানো হয়েছে, কেড়ে আঙুলের নিচে থাকা রেখাগুলি যদি শেষে গিয়ে কাঁটার মতো হয়ে যায়, চাহলে বুঝতে হবে আপনার জমজ বাচ্চা হতে চলেছে।

ছেলে হবেই হবে! দেখুন তো আপনার তালুতে থাকা রেখাগুলি খুব গাড় কিনা। যদি এমনটা হয়, তাহলে আপনার ছেলেই হবে একথা একেবারে নিশ্চিত করে বলা সম্ভব। প্রসঙ্গত, চিনের প্রাচীন হস্তরেখা সম্পর্কিত পুঁথি ঘেটে এ সম্পর্কে আরও তথ্য পাওয়া গেছে।

মেয়ে হলে: এমনটা বিশ্বাস করা হয় যে হাতের রেখা যদি সরু এবং হালকা হয়, তাহলে মেয়ে সন্ত্বান হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।

বাচ্চা দুর্বল হবে নাকি? আপনার হাতের এই বিশষ রেখাগুলি কি শেষে গিয়ে ইংরেজির “পি” অক্ষরের মতো হয়ে গেছে? যদি এমনটা হয় তাহলে দুঃশ্চিন্তার বিষয়। কারণ এই ধরনের রেখা হাতে থাকলে বাচ্চার শারীরিক অবস্থা একেবারেই ভাল হয় না।

বাচ্চা বড় করতে বেশ কষ্ট পোয়াতে হবে: উপরের ছবিতে যেমন দেখানো হয়েছে, আপনার হাতের রেখাগুলি কি এমন ধরনের? তাহলে জানবেন, বাচ্চাদের বড় করে তুলতে বেশ কষ্ট করতে হতে পারে আপনাকে। সেক্ষেত্রে বাচ্চার জন্মের একেবারে প্রথম থেকেই প্রয়োজনীয় ব্য়বস্থা নেবেন। তাতে বাচ্চার বিগড়ে যাওয়ার আশঙ্কা কমবে।

বাচ্চার শরীর একেবারে ভাল থাকবে না: হাতের এই বিশেষ রেখাগুলি যদি একটু তেরছা গোছের হয়, তাহলে বুঝতে হবে জন্মাতে চলা বাচ্চাটি শারীরিকভাবে বেশ দুর্বল হবে এবং বারে বারে অসুস্থ হয়ে পরার আশঙ্কা থাকবে।

পুরুষদের ক্ষেত্রে: সাধারণত “বেবি লাইন” ছেলেদের হাতে থাকে না। কিন্তু কোনও পুরুষের হাতে যদি এমন রেখা থেকে থাকে, তাহলে বুঝতে হবে তার বাচ্চা শারীরিকভাবে বেশ দুর্বল হবে।

মহিলাদের ক্ষেত্রে: মেয়েদের হাতেই সাধারণত এই বিশেষ রেখাগুলি থাকে, যা বিশ্লেষণ করে বাচ্চার সংখ্যা এবং তার শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে ধারণা করা যায়।

সুত্র : ইন্টারনেট

আরও পড়ুন ::

Back to top button