হলিউড

মদের বোতল ছুড়ে মেরেছিলেন জনি !

মদের বোতল ছুড়ে মেরেছিলেন জনি ! - West Bengal News 24

অ্যাম্বার হার্ডের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছেন জনি ডেপ। যার শুনানি চলছে আদালতে। সেখানে জনি ডেপের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন বারকিন। তিনি জানান, নব্বইয়ের দশকে জনির সঙ্গে কয়েক মাস সম্পর্কে ছিলেন তিনি।

তাদের মধ্যে গভীর সম্পর্কও হয়েছিল। তবে সেই সম্পর্ক বেশি দূর এগিয়ে নিয়ে যেতে পারেননি জনির অত্যাচারে। অভিনেত্রীর দাবি, জনি ছিলেন প্রবল ঈর্ষাপরায়ণ। অধিকারবোধ যেন তাকে আঁকড়ে ধরে রাখত।

যার ফলে সম্পর্কে অশান্তি লেগেই থাকত। বারকিনের পিঠে একবার একটা আঁচড়ের দাগ দেখতে পেয়ে নাকি গায়ে হাত তোলার উপক্রম হয়েছিল জনির। ভেবেছিলেন, অন্য কারও সংস্পর্শে গেছেন এলেন বারকিন।

তা ছাড়া জনির মদ্যপ স্বভাবের কথাও জানান অভিনেত্রী। সারাক্ষণ মদ খেয়ে অমানবিক আচরণ করতেন ‘পাইরেটস অব ক্যারিবিয়ান’-এর নায়ক। একবার লাস ভেগাসের হোটেলে এলেনকে মদের বোতল ছুড়ে মারতে গিয়েছিলেন জনি!

পেশাগতভাবেও অনাচার করেছেন জনি। তিন দশক সেরা অভিনেতার তকমা গায়ে নিয়ে বেশ কিছুদিন বসে ছিলেন তিনি। ২০১৫ সালে অভিনেতার আর্থিক অনটন চরমে উঠেছিল। অ্যাম্বারের সঙ্গে সম্পর্কের অবনতিও তার পরেই।

আদালতে জনির সাবেক স্ত্রী জানিয়েছিলেন, হানিমুনেই তাকে মেরে ফেলতে যাচ্ছিলেন অভিনেতা। তিক্ততার সূত্রপাত সে থেকেই। দাম্পত্যজীবনে চরম গার্হস্থ্য হিংসার শিকার হয়েছেন অ্যাম্বার।

শেষমেশ ২০১৭-তে বিচ্ছেদ জনি আর অ্যাম্বারের। তারপর শুরু হয় একে অপরের প্রতি অভিযোগের পালা। ৫০ লাখ ডলার খরচ করে অ্যাম্বারের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা ঠুকেছিলেন জনি। সেই মামলার শুনানি চলছে ভার্জিনিয়ার আদালতে।

 

মন্তব্য করুন ..

আরও পড়ুন ::

Back to top button